ঐক্যফ্রন্টের আগে বি. চৌধুরীর সঙ্গে কাদের সিদ্দিকীর বৈঠক

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:৩৫ পিএম, ১০ নভেম্বর ২০১৮

গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে চলছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বৈঠক। শনিবার রাত ৯টার দিকে এ বৈঠক শুরু হয়। বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইং সদস্য শায়রুল কবির খান এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

বৈঠকে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, মওদুদ আহমদ, মাহমুদুর রহমান মান্না, বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী, আ স ম আব্দুর রব, তানিয়া রব, সুব্রত চৌধুরী, জাফররুল্লাহ চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত রয়েছেন।

এদিকে একটি সূত্র জানায়, কাদের সিদ্দিকী ঐক্যফ্রন্টের বৈঠকে যোগ দেয়ার আগে যুক্তফ্রন্টের চেয়ারম্যান এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরীর সঙ্গে তা বারিধারার বাসায় সংক্ষিপ্ত বৈঠক করেন।

এর আগে সন্ধ্যায় বিএনপির স্থায়ী কমিটি ও ২৩ দলের জোটের শীর্ষ নেতারা এক জরুরি বৈঠকে বসেন। বৈঠকটিও গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়।

২৩ দলের শীর্ষ নেতাদের বৈঠক শেষে এলডিপির চেয়ারম্যান কর্নেল (অব.) ড. অলি আহমদ বীর বিক্রম বলেন, নির্বাচনে যাওয়া না যাওয়ার ব্যাপারে আগামী দুই দিনের মধ্যে সিদ্ধান্ত নেবে জোট।

তিনি বলেন, জোটের প্রধান দল বিএনপি জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সঙ্গে কথা বলে নির্বাচনে যাওয়া না যাওয়ার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবে আগামী দুই দিনের মধ্যে। আমাদের প্রধান দাবি ছিল খালেদা জিয়ার মুক্তি, সেটা এখনও পূরণ হয়নি। বিরোধী নেতাকর্মীদের হয়রানি না করার প্রতিশ্রুতি কাগজে-কলমে রয়ে গেছে। এখনও গ্রেফতার, মামলা অব্যাহত। এসব বিষয় নিয়ে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

রোববারের মধ্যে জোটগতভাবে নির্বাচনে যাওয়ার বিষয়টি ইসিকে (নির্বাচন কমিশন) জানাতে হবে, সেক্ষেত্রে ২৩ দল কী করবে- এমন প্রশ্নের জবাবে অলি বলেন, আমরা রোববার চিঠি দেব। সে চিঠির ভাষা হবে এমন, যদি আমরা নির্বাচনে যাই, তাহলে নিবন্ধিত দলগুলোর প্রতীক হবে নিজ দলের। আর অনিবন্ধিত দলগুলোর প্রতীক হবে বিএনপির প্রতীক।

কেএইচ/জেএইচ/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :