আপিলেও যাদের মনোনয়ন অবৈধ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১১:৩৮ এএম, ০৬ ডিসেম্বর ২০১৮

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ে রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে দায়ের করা ৫৪৩টি আপিল আবেদনের শুনানি শুরু হয়েছে। আগারগাঁওস্থ নির্বাচন ভবনে ১১ তলায় গঠিত এজলাসে আপিল আবেদনের এ শুনানি অনুষ্ঠিত হচ্ছে। আজ (বৃহস্পতিবার) প্রথম দিন ১৬০ জনের আপিল শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদা, নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার, মো. রফিকুল ইসলাম, বেগম কবিতা খানম ও ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) শাহাদাত হোসেন চৌধুরী এ আপিল শুনানি করছেন। এজলাসে ইসি সচিবালয়ের সচিব হেলালুদ্দীন আহমদও উপস্থিত রয়েছেন।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত দিনাজপুর-১-এর পারভেজ, মাদারীপুর-১-এর জহিরুল মিন্টু, ফেনী-১-এর মিজানুর রহমান, কিশোরগঞ্জ-৩-এর মিজানুল হক, ময়মনসিংহ-৪-এর আবু সাইদ মহিউদ্দিন, ২৯৯ রাঙ্গামাটির অমর কুমার দে, বগুড়া-৪-এর আশরাফুল হোসেন আলম (হিরু আলম), মৌলভীবাজার-২-এর মহিবুল কাদির চৌধুরী, ফেনী-৩-এর হাসান আহমদের মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে।

বুধবার হেলালুদ্দীন আহমদ জানান, ৩ থেকে ৫ ডিসেম্বর নির্ধারিত সময়ে ৫৪৩টি আপিল আবেদন আমরা পেয়েছি। পুরো কমিশন ৬ থেকে ৮ ডিসেম্বর তা শুনবে। শুনানি শেষে আপিলের রায় সঙ্গে সঙ্গে জানিয়ে দেয়া হবে।

এদিকে আজ (বৃহস্পতিবার) আপিল আবেদনের ক্রমিক ১ থেকে ১৬০ নম্বর পর্যন্ত শুনানি অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ১৬১ থেকে ৩১০ নম্বর পর্যন্ত আগামীকাল শুক্রবার এবং শেষ দিন ৮ ডিসেম্বর (শনিবার) ৩১১ থেকে ৫৪৩ নম্বর আবেদনের শুনানি হবে।

উল্লেখ্য, তফসিল অনুযায়ী আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। ৯ ডিসেম্বর প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময়। ১০ ডিসেম্বর প্রতীক বরাদ্দ দেয়ার পর থেকে প্রার্থী ও তার সমর্থকরা নির্বাচনী এলাকায় প্রচার-প্রচারণা চালাতে পারবেন।

এইচএস/আরএস/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :