এই দিন দিন নয় আরও দিন আছে, সরকারকে মান্না

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:১৮ পিএম, ১৪ অক্টোবর ২০২০

দেশজুড়ে ধর্ষণ-নারী নির্যাতনের ঘটনায় অভিযুক্তদের বেশিরভাগই ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের বলে অভিযোগ করেছেন নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না। তিনি ধর্ষণে অভিযুক্তদের আওয়ামী লীগ থেকে বের করে দেয়ারও পরামর্শ দিয়েছেন।

বুধবার (১৪ অক্টোবর) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জাতীয়তাবাদী কর্মজীবী দলের উদ্যোগে ‘ধর্ষণ ও খুনের মূল হোতাদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতে এক মানববন্ধনে’ মান্না এ পরামর্শ দেন।

সরকারকে তিনি বলেন, যারা লাখ লাখ টাকা বিদেশে পাচার করে তাদের খুঁজে বের করতে পারেন না। যারা ডাকাতি করে, ব্যাংক লুট করে মানুষের পকেট কাটে, তাদের বিচার করতে পারেন না। শুধু বিরোধী দলের ওপর এই গরম ঢালেন। বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া তিন তিনবারের প্রধানমন্ত্রী, তাকে ১৭ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। আর আপনাদের ছাত্রলীগের জেলা কমিটির সভাপতি দুই হাজার কোটি টাকা বিদেশে পাচার করে, তার গডফাদারকে খুঁজে বের করতে পারেন না।

নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক বলেন, যতই ভয় দেখান, গুম করেন, খুন করেন, ধর্ষণ করেন, বাংলাদেশের মানুষ জেগেছে, দেশের মানুষ ঘুরে দাঁড়িয়েছে। ভালো হয়ে যান। আর যদি ভালো হতে না পারেন। তাহলে খারাপ মানুষের যে শাস্তি হয়, সেই শাস্তি পাবেন।

সরকারের প্রতি প্রশ্ন রেখে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক এই ভিপি বলেন, আমি প্রশ্ন রাখতে পারি—দুই লাখ ধর্ষণ মামলার বিচার এখন পর্যন্ত কেন হয়নি? ১২ বছর ধরে ক্ষমতায় আছেন, আমাকে বলেন তো সব ধর্ষক আপনাদের দলের মধ্যে কেন? এটা কী দল? আপনারা কী লীগ? আওয়ামী লীগ? যুবলীগ? নাকি ধর্ষক লীগ? সমস্ত ধর্ষককে দল থেকে বের করে দেন।

‘ব্যাংক ডাকাত, ভোট ডাকাতদের বের করে দিয়ে ভালো মানুষদের নিয়ে দল করেন। মানুষদের সম্মান করেন। আর যদি ডাকাতদের নিয়ে দল করেন, গায়ের জোরে সব কিছু চালানোর চেষ্টা করেন, আমি বলি ইতিহাসের শিক্ষা—গায়ের জোরে হিটলার, মুসোলিনি, হোসনি মোবারকও ক্ষমতায় টিকে থাকতে পারেননি, আপনিও পারবেন না।’

মান্না বলেন, একে-ওকে বলে বেড়ান, যতই চিৎকার করেন। নাটক ছিল না আমজাদ হোসেনের, মারপিট যাই কর, টাকার গাট্টি ছাড়বো না। মানববন্ধন-মিছিল যাই করো, আমি ক্ষমতা ছাড়বো না। ওই নাটকের মধ্যে যেভাবে টাকার গাট্টি ছাড়ানো হয়েছে, আপনাকেও সেভাবে গদি থেকে সরানো হবে। অপেক্ষা করেন—এই দিন দিন নয় আরও দিন আছে, এই দিন নিয়ে যাবে সেই দিনের কাছে।

আয়োজক সংগঠনের সভাপতি মো. সালাউদ্দিন খানের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক মো. আলতাফ হোসেন সরদারের সঞ্চালনায় মানববন্ধনে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম, বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মুহাম্মদ রহমাতুল্লাহ, বংশাল থানা বিএনপির সভাপতি তাজউদ্দিন আহমেদ তাজ, কৃষক দলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য লায়ন মিয়া মোহাম্মদ আনোয়ার, এম জাহাঙ্গীর আলম, মৎস্যজীবী দলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য ইসমাইল হোসেন সিরাজী, সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতা নুরুল হক নুরু, গাউসুর রহমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

কেএইচ/এইচএ/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]