বাঁশের লাঠির পাল্টা জবাব দিতে হবে : রব

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:৩৮ পিএম, ০২ মার্চ ২০২১

সাম্প্রতিক সময়ের ঘটনার প্রতি ইঙ্গিত করে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল- জেএসডির সভাপতি আ স ম আবদুর রব বলেছেন, ‘বাঁচতে হলে লড়তে হবে, লড়াই করে জিততে হবে। এই লড়াই বাঁচার লড়াই, এই লড়াইয়ে জিততেই হবে। বাঁশের লাঠির পাল্টা জবাব দিতে হবে। সেইভাবে প্রস্তুতি নিতে হবে।’

মঙ্গলবার (২ মার্চ) বিকেলে জাতীয় প্রেস ক্লাব মিলনায়তনে বিএনপির স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন জাতীয় কমিটির উদ্যোগে ঐতিহাসিক পতাকা উত্তোলন দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

মুক্তিযুদ্ধের সূচনালগ্নে প্রথম স্বাধীন দেশের পতাকা উত্তোলনকারী আসম আবদুর রব বলেন, ‘একাত্তরের আওয়ামী লীগ স্বাধীনতার সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসকে একেবারে দলীয় দৃষ্টিভঙ্গিতে সীমাবদ্ধ করে রাখতে চায়। এ ধরনের সংকীর্ণতা মুক্তিযুদ্ধকে অসন্মানের শামিল।’

তিনি বলেন, ‘সমগ্র জাতির নিরবচ্ছিন্ন আন্দোলন-সংগ্রামের পরিণতিতে মুক্তিযুদ্ধ এবং অগণিত মানুষের আত্মত্যাগের মধ্য দিয়েই আমরা লাভ করেছি আমাদের স্বাধীনতা।’

jagonews24

জিয়াউর রহমানের খেতাব কেড়ে নেয়ার উদ্যোগের সমালোচনা করে তিনি বলেন, “এই উদ্যোগ সরকারকে ‘মুক্তিযুদ্ধের ভিলেন’ হিসেবে চিত্রিত করবে। রাষ্ট্রের যে বীরত্ব প্রদর্শন করা হয়েছে সে বীরত্ব বাতিলের অধিকার কারও নেই। বীরত্ব কারও অনুগ্রহ নয়, এটা অর্জন।”

রব বলেন, জিয়াউর রহমানের খেতাব বাতিলের অপচেষ্টা থেকে সরকারকে অবশ্যই বিরত থাকতে হবে। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবিও জানান তিনি।

এর আগে মিলনায়তনের সামনে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরকে নিয়ে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন আ স ম আবদুর রব।

১৯৭১ সালের ২ মার্চ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলায় তৎকালীন ডাকসু ভিপি স্বাধীন বাংলা ছাত্র সংগ্রাম পরিষদের নেতা আ স ম আবদুর রব প্রথম বাংলাদেশের পতাকা উত্তোলন করেছিলেন।

কেএইচ/ইএ/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]