নাজাতের একমাত্র পথ ঈমান ও আনুগত্য


প্রকাশিত: ০৫:৩২ এএম, ০৩ মে ২০১৬

মুক্তি লাভের একমাত্র পন্থা হলো আল্লাহ তাআলার প্রতি ঈমান এবং আনুগত্য। ঈমানের সম্পদ লাভ হলে সেই ঈমান মোতাবেক আমল করার তাওফিক পাওয়া যায়। ঈমান ব্যতিত নেক আমলের কথা চিন্তাও করা যায় না, আর নেক আমল ব্যতিত ঈমান অপূর্ণ। এ জন্য মুমিন বান্দার উচিত আল্লাহর নিকট পরিপূর্ণ আত্মসমর্পণ করা। আল্লাহ তাআলা বলেন-

Quran-Inner

‘অবশ্যই যে ব্যক্তি আল্লাহর নিকট বিশুদ্ধ চিত্তে আত্মসমর্পণ করে এবং তবে তার জন্য তার প্রতিপালকে নিকট পূর্ণ প্রতিদান সুনিশ্চিত রয়েছে, তদের কোনো ভয় নেই, তারা কোনো দিন চিন্তিতও হবে না ’ (সুরা বাক্বারা : আয়াত ১১২)

এ আয়াতে আত্মসমর্পণ বলতে শুধুমাত্র আল্লাহ তআলার সন্তুষ্টির জন্য কাজ করা বুঝায়। আর বিশুদ্ধচিত্ত বলতে শিরকমুক্ত খাঁটি মনে নিষ্ঠার সঙ্গে সর্বশ্রেষ্ঠ এবং সর্বশেষ নবি ও রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের দেখানো পথে এবং মতের আনুগত্য করা বুঝায়। কেননা আল্লাহ তাআলার দরবারে প্রত্যেক মানুষের আমল কবুল হওয়ার মৌলিক শর্তও এ দুটি। এ মৌলিক নীতি অনুযায়ী আমল করলে পরকালের মুক্তি সুনিশ্চিত। আমলবিহীন কেবল আশা ও কামনা করলেই মুক্তি পাওয়া যাবে না।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে পরকালের নাজাত এবং সফলতা লাভে আল্লাহ তাআলার দরবারে সম্পূর্ণভাবে আত্মসমর্পণ (তাঁর প্রতি ঈমান গ্রহণ) করার এবং নেক কাজ (আনুগত্য) করার তাওফিক দান করুন। আমিন।

এমএমএস/আরআইপি