চ্যাম্পিয়ন রংপুরের বিপক্ষে খুলনার লড়াকু সংগ্রহ

ক্রীড়া প্রতিবেদক ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৫০ পিএম, ২২ জানুয়ারি ২০১৯

আপাতদৃষ্টিতে টুর্নামেন্ট থেকে প্রায় ছিটকেই গিয়েছে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের খুলনা টাইটানস। তবু অঙ্কের হিসেবে টিকে রয়েছে তাদের প্লে'অফ খেলার সম্ভাবনা। নিজেদের বাকি থাকা পাঁচ ম্যাচের সবটিতে জয়সহ বেশ কিছু জটিল সমীকরণ পক্ষে আসলেই কেবল সুপার ফোর পর্বের টিকিট পাবেন মাহমুদউল্লাহ-জুনায়েদ সিদ্দিকীরা।

সমীকরণ মিলবে কি-না তা নেই খুলনার হাতে, তারা যা করতে পারে অর্থাৎ মাঠের খেলায় নিজেদের সেরাটা দিয়েই চেষ্টা করছে বাকি ম্যাচগুলো জেতার। সে লক্ষ্যে টুর্নামেন্টের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন রংপুর রাইডার্সের বিপক্ষে ১৮১ রানের বড় সংগ্রহ দাঁড় করিয়েছে খুলনা টাইটানস। ম্যাচ জিততে ১৮২ রান করতে হবে রংপুরকে।

টসে হেরে আগে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালো করতে পারেননি খুলনার দুই ওপেনার ধারাবাহিকভাবে খেলতে থাকা জুনায়েদ সিদ্দিকী ও আলআমিন জুনিয়র। ইনিংসের প্রথম ওভারেই রংপুর অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজার বোলিংয়ে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়ে বসেন আলআমিন। করেন মাত্র ৪ রান।

নিজের ফর্মের আভাস দিচ্ছিলেন জুনায়েদ। কিন্তু তাকে বেশিদূর যেতে দেননি ফরহাদ রেজা। চতুর্থ ওভারের শেষ বলে ছক্কা হাঁকাতে গিয়ে রিলে রুশোর হাতে ধরা পড়েন জুনায়েদ। ১২ বল থেকে করেন ১৩ রান। তৃতীয় উইকেট জুটিতে ৪৯ রান যোগ করেন ব্রেন্ডন টেলর ও নাজমুল হোসেন শান্ত। ২০ বল খেলে টেলর ফেরেন ৩২ রান করে।

এরপর ইনিংস গড়ার দায়িত্ব নেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ও নাজমুল হোসেন শান্ত। দুজন মিলে চতুর্থ উইকেটে যোগ করেন ৫৬ রান। ফিফটিত কাছে গিয়েও ব্যর্থ হন শান্ত। ২ চার ও ৩ ছক্কার মারে ৩৫ বল থেকে ৪৮ রান করেন তিনি। অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহর ব্যাট থেকে আসে ২৯ রান।

শেষদিকে খুলনার ইনিংসকে এগিয়ে নেন ডেভিড উইজ। মাত্র ১৫ বলে ৩ চার ও ২ ছক্কার মারে ৩৫ রান করে দলের সংগ্রহকে ১৮১ রানে নিয়ে যান তিনি। বল হাতে রংপুরের পক্ষে একাই ৪ উইকেট নেন ফরহাদ রেজা।

এসএএস/এমকেএইচ