চিটাগংকে ১৬৬ রানের লক্ষ্য দিল সিলেট

ক্রীড়া প্রতিবেদক ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৯:০৯ পিএম, ০১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

এই ম্যাচে হার-জিত দিয়ে কোনো কিছুই হবে না সিলেট সিক্সার্সের জন্য। চিটাগং ভাইকিংসের বিপক্ষে এই ম্যাচটা তাদের জয় কেবলই নিয়মরক্ষার। অন্যদিকে চিটাগংয়ের জন্য গুরুত্বপূর্ণ, নিজেকের অবস্থান তৈরি করতে। এমন সমীকরণের ম্যাচে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে চিটাগংকে ১৬৬ রানের লক্ষ্য ছুড়ে দিয়েছে সিলেট সিক্সার্স।

শুরুতেই টস জিতেছিলেন মুশফিকুর রহীম। এ নিয়ে টানা পাঁচ ম্যাচ টস জিতলেন তিনি। বিকেলের ম্যাচ, সন্ধ্যার পর শিশিরে ভেজা থাকে ঘাস। এ কারণেই রান তাড়া করার সিদ্ধান্ত নেন মুশফিক। ব্যাট করার জন্য আমন্ত্রণ জানান সিলেট অধিনায়ক অলক কাপালিকে।

আমন্ত্রিত হয়ে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই বিপর্যয়ে পড়ে সিলেট। চিটাগংয়ের দক্ষিণ আফ্রিকান পেসার হার্দাস ভিলোয়েনের বলে ইয়াসির আলির হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান আফিফ হোসেন ধ্রুব। জেসন রয় মাত্র ১১ রান করতে সক্ষম হন। ১৪ রানে প্রথম এবং ৩৭ রানে সিলেট হারায় দ্বিতীয় উইকেট।

এরপর সাব্বির রহমানকে নিয়ে ওপেনার আন্দ্রে ফ্লেচার জুটি বাধেন। দু’জনের ব্যাটে ৬৫ রানের জুটি গড়ে ওঠে। ২৫ বলে ৩২ রান করে ফিরে যান সাব্বির রহমান। এরপর মাঠে নামেন মোহাম্মদ নওয়াজ। তিনি মাঠে নেমেই কিছুটা ঝড় তোলার চেষ্টা করেন। ১৯ বলে ২ বাউন্ডারি আর ৩ ছক্কায় করেন ৩৪ রান।

অন্যদিকে ওপেনার আন্দ্রে ফ্লেচারও এ সময় কিছুটা ঝড় তোলেন। ৫৩ বল খেলে তিনি করেন ৬৬ রান। ৬টি বাউন্ডারির সঙ্গে ২টি ছক্কার মার মারেন তিনি। শেষ দিকে জাকের আলি ৮ এবং ওয়াইন পার্নেল ২ রান করে অপরাজিত থাকেন। শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৬৫ রান সংগ্রহ করে সিলেট সিক্সার্স।

দক্ষিণ আফ্রিকান পেসার ভেলোয়েন ৪ ওভারে ২৯ রান দিয়ে একাই নেন ৪ উইকেট। বাকি উইকেটটি নেন নাঈম হাসান।

আইএইচএস/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]