সিপিএলে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন নাইট রাইডার্স

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৫২ এএম, ১১ সেপ্টেম্বর ২০২০

স্বপ্নের মতো এক টুর্নামেন্ট খেললো ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স। পুরো টুর্নামেন্টে কোনো ম্যাচ তো হারেইনি তারা, উল্টো জিতেছে চারটি দলের দ্বিগুণ ম্যাচ। আর সেই সুবাদেই পেয়েছে টুর্নামেন্টের অপরাজিত চ্যাম্পিয়নের তকমা। পুরো আসরে নিজেদের ১২টি ম্যাচের সবকয়টি জিতে চতুর্থবারের মতো সিপিএল শিরোপা জিতেছে নাইট রাইডার্স।

চলতি আসর শুরুর আগেই তিন শিরোপা নিয়ে সিপিএলের ইতিহাসের সফলতম দল ছিল ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স। এবার সেটিকে বাড়িয়ে তারা জিতল চতুর্থ শিরোপা। পুরো আসরের মতো ফাইনাল ম্যাচেও তাদের কাছে পাত্তা পায়নি প্রতিপক্ষ সেইন্ট লুসিয়া জুকস।

বৃহস্পতিবার রাতে ব্রায়ান লারা স্টেডিয়ামে আগে ব্যাট করে নির্ধারিত ২০ ওভারের ৫ বল বাকি থাকতেই ১৫৪ রানে অলআউট হয়ে যায় সেইন্ট লুসিয়া। জবাবে শুরুটা খানিক ভয় জাগানিয়া হলেও শেষপর্যন্ত ১১ বল হাতে রেখে মাত্র ২ উইকেট হারিয়েই জয়ের বন্দরে পৌঁছে গেছে নাইট রাইডার্স।

রান তাড়া করতে নেমে মাত্র ১৯ রানেই সাজঘরে ফিরে যান ওপেনার টিয়ন ওয়েবস্টার (১১ বলে ৫) ও তিনে নামা টিম সেইফার্ট (২ বলে ৪)। টুর্নামেন্টে অল্প রান ডিফেন্ড করার ক্ষেত্রে বিশেষ পারদর্শিতা দেখানো সেইন্ট লুসিয়ার জন্য এমন শুরুটা ছিল খুবই আশা জাগানিয়া।

কিন্তু তৃতীয় উইকেট জুটিতে ড্যারেন স্যামির দলের সব আশা-প্রত্যাশা ধুলোয় মিশিয়ে দেন লেন্ডল সিমনস ও ড্যারেন ব্রাভো। দুজন মিলে অবিচ্ছিন্ন জুটিতে যোগ করেন ১৩৮ রান, তাও মাত্র ৮৮ বলে। এ জুটির কল্যাণেই ১১ বল হাতে রেখে ৮ উইকেটের বড় ব্যবধানে ম্যাচ জিতে নেয় নাইট রাইডার্স।

ফাইনালের ম্যাচসেরা সিমনস খেলেন ৮৪ রানের ইনিংস। ৪৯ বলের এই ইনিংসটি তিনি সাজান ৮ চার ও ৪ ছয়ের মারে। চার নম্বরে নেমে দলকে নির্ভরতা দেয়া ড্যারেন ব্রাভো ৪৭ বলে ২ চার ও ৬ ছক্কার মারে ৫৮ রান করে অপরাজিত থাকেন।

এর আগে সেইন্ট লুসিয়াকে দেড়শ রানের সংগ্রহ এনে দেয়ার কৃতিত্ব মার্ক দেয়াল (২৭ বলে ২৯), আন্দ্রে ফ্লেচার (২৭ বলে ৩৯), রস্টোন চেজ (২২ বলে ২৪) ও নাজিবউল্লাহ জাদরানের (১৪ বলে ২২)। শেষদিকের ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় বড় স্কোর দাঁড় করাতে পারেনি তারা।

নাইট রাইডার্সের পক্ষে বল হাতে ৪ উইকেট নিয়েছেন অধিনায়ক কাইরন পোলার্ড। পুরো আসরজুড়ে ব্যাটে-বল সমান অবদান রেখে দলকে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন করায় ম্যান অব দ্য টুর্নামেন্টের পুরস্কারও জিতেছেন এ মারকুটে অলরাউন্ডার।

এসএএস/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]