আবাহনীকে হারাতে ‘পাওয়ার প্লে ছক’ সাজিয়েছে মোহামেডান

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১১:৪৩ এএম, ১১ জুন ২০২১

আবাহনী কোচ খালেদ মাহমুদ সুজনের মত মোহামেডানের এবারে প্রশিক্ষক মেহরাব হোসেন অপিও সাদা কালো আর আকাশী হলুদ- দুই জার্সি গায়েই খেলেছেন। তার অনুভব, ‘মোহামেডান-আবাহনী ম্যাচের যেই রমরমা ব্যাপার ছিল, সেটা এখন আর নেই। তারপরও আমার মনে হয় মোহামেডান-আবাহনী ম্যাচের এখনও একটা আবেদন আছে, অন্যরকম আমেজ আছে।’

অপি বলতে থাকেন, ‘ক্রিকেট পাগল মানুষ বিশেষ করে দুই দলের সমর্থকরা এখনও এই ম্যাচের দিকে অন্যভাবে দেখেন, মনে প্রাণে চায় প্রিয় দল জিতুক। মোহামেডানের সাপোর্টাররা চায় তাদের পছন্দের দল জিতুক। আবাহনীর ভক্তদেরও আশা থাকে প্রিয় দলই হাসুক শেষ হাসি। এখনও মোহামেডান-আবাহনীকে অনেকেই ভালবাসে। তাদের সাফল্য কামনা করে।’

বর্তমানে মোহামেডান ক্রিকেট দলের কোচের দায়িত্বে থাকা অপি মনে করেন, মোহামেডান আর আবাহনী শুধু ম্যাচ না, একটা বিরাট উপলক্ষ। খেলোয়াড়রা অপেক্ষা করে আবাহনী-মোহামেডান ম্যাচ কবে কখন হবে? ভাল খেলার একটা তাগিদও কাজ করে। ভাল খেলে সবার নজর কাড়ার চেষ্টা থাকে। এ ম্যাচে ভাল খেললে সবার নজর ও মনোযোগ আকর্ষণ করা যায়।

কিন্তু এই দ্বৈরথে আবাহনীকে মোকাবিলায় কতটা প্রস্তুত মোহামেডান? আবাহনী গুছিয়ে উঠেছে আর মোহামেডান টানা তিন ম্যাচ হেরে বিধ্বস্ত। তবু অপির দাবি, ‘আমার দলও প্রস্তুত। যদিও আমরা প্রথম তিন জেতার পর তিন ম্যাচ হেরে গেছি। তবে ছেলেরা মনোবল হারায়নি। আবাহনীর বিপক্ষে বড় ম্যাচ, যদি জিততে পারি আমাদের টিমের সবকিছু ঠিক হয়ে যাবে। আমি মনে করি, আমার দল সেরাটা উপহার দিতে পারলে মানে পারফরম্যান্সটা সর্বোচ্চ পর্যায়ের হলে ইনশাআল্লাহ আমরা জিততে পারি।’

কাগজে কলমে তো আবাহনী এগিয়ে। মোহামেডানের এই লাইনআপের কি আবাহনীকে হারানোর ক্ষমতা আছে? মোহামেডান কোচের জবাব, ‘হ্যাঁ, ‘অন পেপার’ আবাহনী কিছুটা এগিয়ে আছে। তারপরও আমার মনে হয় আমাদের শক্তি আছে, আমরা যদি সামর্থ্য অনুযায়ী খেলতে পারি, অবশ্যই আবাহনীকে হারানো সম্ভব।’

আপনার দলের ব্যাটিং একদমই ভাল হচ্ছে না। এটা কতটা চিন্তার? অপির জবাব, ‘নাহ! মিডল অর্ডার যে খুব খারাপ করছে, তা বলব না। যতগুলো ম্যাচ খেলেছি প্রায় সবদিনই মিডল অর্ডারে কেউ না কেউ রান করেছে। একদিন নাদিফ রান করেছে। একদিন ইমন রান করছে। সাকিবও ভাল খেলেছে। একদিন ইরফান শুক্কুর ভাল খেলেছে। শুভাগত হোমও রান করেছে। একটু চিন্তিত ওপেনিং নিয়ে।’

‘টপ অর্ডার ঠিক পারফরম করতে পারছে না। আমার মনে হয়, ওপেনিং জুটিটা যদি ঠিক করতে পারি, পাওয়ার প্লে কাজে লাগিয়ে শুরুটা ভাল হয়, প্রথম ৬ ওভারে ৪৫-৫০ রান করতে পারি, তাহলে আমরা যে কোন দলকে চাপে ফেলতে পারব।’

টিম কম্বিনেশনে কোন সমস্যা? সাকিবের পাশে আপনি কি একজন বাড়তি স্পিনারের অভাব অনুভব করেছেন? মোহামেডান কোচ উত্তর দিলেন, ‘নাহ, সাকিবের পাশাপাশি যে স্পিনার খেলছে, সে খারাপ বোলিং করেনি। সেই আসিফও ভাল বোলিং করছে। আমার যে পেস বোলিংয়ের লটটা ছিল, সেখানে আমি সার্ভিস পাইনি ঠিকমত। তারা পারফরম করতে পারেনি। সব ঠিক আছে। শুধু আবু হায়দার রনি ছাড়া।’

এআরবি/এসএএস/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]