প্রথম গোলেই আর্জেন্টিনার সর্বনাশ

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:১০ এএম, ২২ জুন ২০১৮

ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে পুরো ম্যাচেই একের পর এক ভুল করেছে আর্জেন্টিনার ডিফেন্স। ডি বক্সের ভেতর বল ক্লিয়ার না করে নিজেদের মধ্যেই পাস-পাস খেলে বল হারিয়েছে বেশ কয়েকবার। তবু কপাল গুণে প্রথমার্ধে কোন গোল হজম করতে হয়নি তাদের। দ্বিতীয়ার্ধে মাঠে নেমেই ম্যাচের প্রথম গোলটি করেন আনতে রেবিক।

আর্জেন্টিনার গোলরক্ষকের ভুলে হওয়া এই গোলেই যা সর্বনাশ হওয়ার হয়ে গিয়েছিল বলে জানিয়েছেন আর্জেন্টাইন রক্ষণভাগের খেলোয়াড়রা। উইলি কাবায়েরো সতীর্থ ডিফেন্ডারকে পাস দেয়ার বলে বল ঠেলে দেন ক্রোয়েশিয়ান ফরোয়ার্ড রেবিকের পায়ে। সুযোগসন্ধানী রেবিক এই সহজতম সুযোগটি হাতছাড়া করেননি।

এই গোলের পরে আরও দুই গোল করেন লুকা মদ্রিচ এবং ইভান রাকিতিচ। কিন্তু প্রথমটিতেই সব ক্ষতি হয়েছে বলে মনে করেন আর্জেন্টিনার অভিজ্ঞ ডিফেন্সিভ মিডফিল্ডার হাভিয়ের মাচেরানো। ম্যাচ শেষে তিনি বলেন, ‘প্রথম গোলটা পর আমাদের ঘুরে দাঁড়ান বেশ কঠিন হয়ে পড়েছিল। সেই গোলের পর সবকিছু বিধ্বস্ত লাগছিল।’

একই মত দেন আরেক ডিফেন্ডার নিকোলাস তালিয়াফিকো। তিনি বলেন, ‘প্রথম গোলের পর আমাদের সব পরিকল্পনা ধ্বংস হয়ে যায়।’ এই দুই ডিফেন্ডারের মতো একই সুরে কথা বলেন আর্জেন্টিনার কোচ হোর্হে সাম্পাওলিও। তিনি বলেন, ‘প্রথম গোলটার পরে দল উত্তেজিত হয়ে পড়ে। আমরা চেষ্টা করছিলাম ঘুরে দাঁড়াতে কিন্তু সফল হইনি।’

এসএএস/এমএস