ফিফা ফ্রেন্ডলি খেলতে পাঁচদিন আগে কম্বোডিয়া যাবে ফুটবল দল

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৬:৫৫ পিএম, ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দল সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছে গত বছর ১০ অক্টোবর। কক্সবাজারে বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের সেমিফাইনালে ফিলিস্তিনের কাছে হারার পর দীর্ঘ গত চার মাসে জাতীয় দলের কোনো কার্যক্রমই নেই। বাফুফে ফিফা ফ্রেন্ডলি ম্যাচ খেলার চেষ্টা করেও প্রতিপক্ষ পায়নি। অবশেষ ঠিক ৫ মাস পর আবার আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলতে নামছে লাল-সবুজ জার্সিধারী দল। আগামী ৯ মার্চ কম্বোডিয়ায় দেশটির সঙ্গে ফিফা ফ্রেন্ডলি খেলবে জেমি ডে’র শিষ্যরা।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ চলায় জাতীয় দলের ইংলিশ কোচ জেমি ডে কম্বোডিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের আগে কোনো ক্যাম্প করতে পারছেন না। তিনি এখন ভেন্যু থেকে ভেন্যুতে ছুটে প্রিমিয়ার লিগের খেলা দেখছেন এবং তিনি কম্বোডিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের জন্য খেলোয়াড় বাছাই করছেন।

প্রিমিয়ার লিগের দশম রাউন্ড শেষ হবে ৫ মার্চ। ওই দিনই জেমি ডে তার দল নিয়ে যাবেন কম্বোডিয়া। সেখানেই তিন দিন অনুশীলনের পর স্বাগতিকদের সঙ্গে ম্যাচ খেলবেন। বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ জাগো নিউজকে জানিয়েছেন, ‘লিগ বন্ধ করে আমাদের ক্যাম্প করার কোনো সুযোগ নেই। তাই কোচ লিগের ম্যাচ দেখে ঠিক করে তাদের নিয়ে ৫ দিন আগে চলে যাবেন এবং সেখানেই ম্যাচের আগ পর্যন্ত অনুশীলন করবেন।’

ফিফা র্যাংকিংয়ে বাংলাদেশের চেয়ে ২০ ধাপ এগিয়ে কম্বোডিয়া। ফিফা ঘোষিত সর্বশেষ র্যাংকিংয়ে বাংলাদেশ ১৯২, কম্বোডিয়া ১৭২। র্যাংকিংয়ে পিছিয়ে থাকলেও কম্বোডিয়ার বিপক্ষে অতীত রেকর্ড বাংলাদেশের পক্ষেই। এ পর্যন্ত দুই দেশ তিনটি আন্তর্জাতিক ম্যাচে মুখোমুখি হয়ে দুটিতে জিতেছে লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। একটি ম্যাচ ড্র হয়েছে।

২০০৬ সালে এএফসি চ্যালেঞ্জ কাপ প্রথমবারের মতো দেখা হয়েছিল বাংলাদেশ-কম্বোডিয়ার। বাংলাদেশ জিতেছিল ২-১ গোলে। পরের বছর দিল্লিতে নেহরু কাপে ১-১ গোলে ড্র হয়েছিল দুই দলের ম্যাচ। ২০০৯ সালে ফিফা ফ্রেন্ডলি ম্যাচে কম্বোডিয়াকে ১-০ গোলে হারিয়েছিল বাংলাদেশ।

আরআই/এমএমআর/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :