রোনালদোর ছেলের বিরুদ্ধে পুলিশি তদন্ত

স্পোর্টস ডেস্ক
স্পোর্টস ডেস্ক স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৫৩ এএম, ১৫ জুলাই ২০২০

ইতালিয়ান সিরি 'আ'তে জুভেন্টাসের হয়ে খেলতে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো এখন রয়েছেন ইতালির তুরিনে। করোনাভাইরাসের লকডাউনের সময়টায় তিনি ছিলেন নিজ জন্মস্থান পর্তুগালের মাদেইরাতে, সময় কাটিয়েছেন পরিবারের সঙ্গে। হাসিখুশিতে কেটে গেছে সেই সময়টা।

কিন্তু রোনালদো ইতালিতে ফিরে যেতেই যেন ঝামেলা বাঁধিয়ে ফেলল তার পরিবার। অনাকাঙ্ক্ষিত এক ঘটনায় পুলিশি তদন্ত শুরু হয়েছে রোনালদোর ১০ বছর বয়সী ছেলে ক্রিশ্চিয়ানো জুনিয়রের বিরুদ্ধে। যেখানে শাস্তি হতে পারে ৩০০ থেকে ৩০০০ পর্যন্ত জরিমানা।

অবসর সময়টা রোনালদোর বান্ধবী জর্জিনা রদ্রিগেজ, তাদের চার ছেলেমেয়ে, মা দোলোরেস অ্যাভেইরো ও বোন এলমা অ্যাভেইরো মিলে গিয়েছিলেন দক্ষিণ মাদেইরার পল দে মার দ্বীপে। বিলাসবহুল প্রমোদতরীতে তাদের সময় ভালোই কাটছিল। কিন্তু ঝামেলা শুরু হয় ক্রিশ্চিয়ানো জুনিয়রকে নিয়ে।

বেশ সাহসী ও চটপটে জুনিয়র একাই জেট স্কি নিয়ে নেমে পড়ে মাঝ সমুদ্রে। সেই ভিডিও আবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইন্সটাগ্রামে পোস্ট করেন রোনালদোর বোন অ্যালমা অ্যাভেইরো। আর এতেই বাঁধে বিপত্তি। তা টের পেয়ে ভিডিও ডিলিট করে দেন রোনালদোর বোন।

কিন্তু ততক্ষণে যা হওয়ার হয়ে গেছে। পর্তুগালের আইন অনুযায়ী যথাযথ লাইসেন্স ছাড়া জেট স্কি চালানোর অনুমতি নেই কারও। সেখানে রীতিমতো একাই জেট স্কি চালাচ্ছিলেন ১০ বছর বয়সী ক্রিশ্চিয়ানো জুনিয়র। ফলে জুনিয়র ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে এখন আইন মোতাবেক চলবে পুলিশি তদন্ত।

পুলিশ কর্মকর্তা গুররেয়ো কারদোসো পর্তুগিজ মিডিয়াকে নিশ্চিত করেছেন যে, এ বিষয়ে এরই মধ্যে তদন্ত শুরু হয়েছে। যা শেষ হলে জানা যাবে, রোনালদোর পরিবারকে আদৌ জরিমানার অর্থ পরিশোধ করতে হবে কি না। দোষী প্রমাণিত হলে সর্বনিম্ন ৩০০ থেকে সর্বোচ্চ ৩ হাজার ইউরো পর্যন্ত জরিমানা গুনতে হবে।

এসএএস/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]