গোপন সাইটে ঢোকার পথও বন্ধ হচ্ছে ভারতে, ভিপিএন নিষিদ্ধের সুপারিশ

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক
তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৯:৪৯ পিএম, ০৩ সেপ্টেম্বর ২০২১

সাইবার অপরাধ প্রতিরোধে ভার্চুয়াল প্রাইভেট নেটওয়ার্ক (ভিপিএন) নিষিদ্ধ করার সুপারিশ করেছে ভারতের সংসদীয় স্থায়ী কমিটি।

বিশ্বব্যাপী অনেক মানুষ এ পরিষেবায় ইন্টারনেট ব্যবহার করেন। এটির ব্যবহারকারী কোথায় আছেন, কী তার আইপি পরিচয় সবটা জানতে পারা বেশ কঠিন।

এর মাধ্যমে অবস্থানরত দেশে নিষিদ্ধ সাইট, গেম, অ্যাপ ব্যবহার করারও সুযোগ পান ভার্চুয়ালবাসীরা। এ পরিষেবাকেই এবার বন্ধ করে দিতে চলেছে ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

ভারতের সংসদীয় স্থায়ী কমিটি তাদের সুপারিশে উল্লেখ করেছে, অপরাধমূলক ঘটনার ক্ষেত্রে অপরাধী ভিপিএন ব্যবহার করায় হদিস পাওয়া কঠিন হয়ে দাঁড়ায়। দেশের সাইবার নিরাপত্তার দিকে লক্ষ্য রাখতেই এ পরিষেবাকে নিষিদ্ধ করা প্রয়োজন। ভবিষ্যতে এর মাধ্যমে বড় কোনো অপরাধ ঘটতে পারে বলে আশঙ্কা রয়েছে।

এর পাশাপাশি ভিপিএন ও ডার্ক ওয়েব নিয়ন্ত্রণের জন্য কেন্দ্রের আরও আধুনিক নজরদারি ও প্রযুক্তি প্রয়োগের সুপারিশ করেছে কমিটি।

হিন্দুস্তান টাইমসের খবরে বলা হয়, বিশ্বে ভিপিএন ব্যবহারে শীর্ষে ভারত। সাইবার অপরাধীরা ভিপিএন সার্ভিস ব্যবহার করলেও বহু সাধারণ মানুষও এটি ব্যবহার করেন। এর মাধ্যমে দেশে নিষিদ্ধ সাইট, গেম, অ্যাপ ব্যবহার করেন তারা। তাছাড়া করোনা পরিস্থিতিতে বহু মানুষ ওয়ার্ক ফ্রম হোম করছেন। অনেক ক্ষেত্রেই কাজের জন্য ভিপিএন ব্যবহার করতে হয়।

এএএইচ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]