অনুমোদনহীন জ্যামার-বুস্টার বন্ধে মাঠে রয়েছে বিটিআরসি

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:২৪ পিএম, ১৯ মে ২০২২
১৫ মে রাজধানীর বিভিন্ন জায়গায় অভিযান চালিয়ে অনুমোদনহীন জ্যামার-বুস্টার জব্দ করে বিটিআরসি ও র‌্যাব

রাজধানীতে অনুমোদনহীন জ্যামার, বুস্টার ও রিপিটার বিক্রয় ও ব্যবহার বন্ধে যৌথভাবে কাজ করছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি) ও র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। এ লক্ষ্যে ১৮ এপ্রিল থেকে ১৫ মে পর্যন্ত রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালায় বিটিআরসির এনফোর্সমেন্ট অ্যান্ড ইন্সপেকশন টিম ও র‌্যাব। এ সময় রাজধানীর বিভিন্ন মার্কেট থেকে বিপুল পরিমাণ অনুমোদনহীন জ্যামার, বুস্টার ও রিপিটারসহ পাঁচজনকে আটক করা হয়।

সম্প্রতি বিটিআরসির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

গত ১৮ এপ্রিল রাজধানীর বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম মার্কেটের রহিম ইলেকট্রনিক্স, তেজকুনি পাড়ার মধুমতি ইনকিউবেটর অ্যান্ড ইলেকট্রিক এবং এলিফ্যান্ট রোডস্থ মাল্টিপ্ল্যান কম্পিউটার সিটি সেন্টারের ফেমাস ভিশন লিমিটেড নামক প্রতিষ্ঠানে অভিযান পরিচালনা করা হয়। সেসময় ওই দোকানগুলো থেকে আটটি জ্যামার, ৩০টি বুস্টার এবং একটি রিপিটার জব্দ করা হয়। একইসঙ্গে অবৈধ টেলিযোগাযোগ সামগ্রী বিক্রির অপরাধে তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়। এ বিষয়ে রাজধানীর পল্টন এবং তেজগাঁও থানায় বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ আইন, ২০০১ এর বিধান অনুযায়ী পৃথক দুইটি মামলা হয়েছে।

এরপর গত ১৫ মে রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকায় আইটিস্টলডটকমবিডি এবং ফেসবুক পেজের মাধ্যমে অবৈধ জ্যামার, বুস্টার এবং রিপিটার বিক্রি রোধে অভিযান চালায় বিটিআরসি ও র‌্যাব। ওই অভিযানে চারটি জ্যামার, তিনটি বুস্টার, চারটি এসি অ্যাডাপটর, ২৪ টি জ্যামার অ্যান্টেনা, পাওয়ার ক্যাবল বুস্টারের ৯টি আউটডোর অ্যান্টেনা, বুস্টারের ২৪টি ইনডোর অ্যান্টেনা, ৩৭টি বুস্টারের ক্যাবল ও একটি ল্যাপটপ জব্দ করা হয়। এ সময় দুইজনকে গ্রেফতার করা হয়। এ বিষয়ে রাজধানীর মোহাম্মদপুর থানায় বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ আইন, ২০০১ এর বিধান অনুযায়ী মামলা করা হয়েছে।

এছাড়া, নিয়মিত অভিযানের অংশ হিসেবে গত ২০ ও ২৫ মার্চ এবং ১১ মে বিটিআরসির পরিদর্শকদল অনলাইন মার্কেট প্লেস দারাজ, বিডিস্টলডটকম, এবং ক্লিকবিডি লিমিটেডের অফিস পরিদর্শন করে। পরিদর্শনকালে এসব প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইট/অ্যাপ থেকে এসব অবৈধ জ্যামার, বুস্টার, রিপিটার এবং বিটিআরসির অনুমোদনহীন বেতার যন্ত্রপাতি বিক্রয়কারী ব্যক্তি/প্রতিষ্ঠানকে ব্লক করে এ সংক্রান্ত বিজ্ঞাপনসমূহ অপসারণ করা হয়। একইসঙ্গে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের বিভিন্ন পেজ, লিংক এবং গ্রুপসমূহে এধরনের কোনো বিজ্ঞাপন পাওয়া গেলে তা অপসারণ করা হচ্ছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, সম্প্রতি কমিশন কর্তৃক প্রতীয়মান হয়েছে যে, বিভিন্ন ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে অবৈধভাবে জ্যামার স্থাপন করা হয়েছে। যার ফলে ওই ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের আশপাশের আবাসিক ভবন, স্কুল, হাসপাতাল এবং অন্যান্য জরুরি সেবা কেন্দ্রসমূহের মোবাইল নেটওয়ার্ক বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। এ অবস্থায় এভাবে জ্যামার ব্যবহার থেকে বিরত থাকার জন্য সংশ্লিষ্ট সবাইকে অনুরোধ জানিয়েছে বিটিআরসি। একইসঙ্গে জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ, টিভির স্ক্রলে এ সংক্রান্ত সংবাদ প্রচারসহ কমিশনের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজের মাধ্যমে জ্যামার, বুস্টার ও রিপিটার ক্রয়/বিক্রয়/স্থাপন/ব্যবহার হতে বিরত থাকার জন্য অনুরোধ জানানো হয়েছে।

বিটিআরসির নিয়মিত নজরদারি এবং বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার সক্রিয় তথ্যের ভিত্তিতে এ ধরনের অভিযান ও অনলাইন প্ল্যাটফর্ম মনিটরিং অব্যাহত রয়েছে। জনসাধারণকে এসব অবৈধ জ্যামার, বুস্টার, রিপিটার এবং বিটিআরসির অনুমোদনহীন বেতার যন্ত্রপাতি ক্রয়/বিক্রয় এবং ব্যবহার হতে বিরত থাকার জন্য অনুরোধ জানানো হয়েছে। অন্যথায় কঠোর পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলেও সতর্ক করেছে বিটিআরসি।

এইচএস/কেএসআর/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]