মার্ক টোয়েনের মজার ঘটনা: স্বর্গ-নরক

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০২:৪৩ পিএম, ০৯ মে ২০২২

তার আসল নাম স্যামুয়েল ল্যাংহর্ন ক্লিমেন্স। অবশ্য ‘মার্ক টোয়েন’ ছদ্মনামেই বেশি পরিচিত তিনি। একজন মার্কিন রম্য লেখক, সাহিত্যিক ও প্রভাষক ছিলেন মার্ক টোয়েন।

একদিন বিখ্যাত ও বিতর্কিত শিল্পী হুইসলারের বাড়িতে গেলেন টোয়েন। তখন হুইসলার একখানা ছবি আঁকছিলেন। সেই অসমাপ্ত ছবিটি দেখে মতামত দেওয়ার জন্যই তিনি আমন্ত্রণ জানিয়েছেন মার্ক টোয়েনকে। মার্ক টোয়েন গেলেন হুইসলারের স্টুডিওতে।

কিছুক্ষণ মন দিয়ে ছবিটি দেখার পর ছবির কোণায় একটা মেঘের দিকে আঙুল দেখিয়ে মার্ক টোয়েন বললেন, ‘আমি হলে মেঘটা ঐখানে ঐভাবে আঁকতাম। ওটা মুছে দিলে ছবিটার কোনো ক্ষতি হবে বলে মনে হয় না।’

কথা বলতে বলতে মার্ক টোয়েন আঙুলটা ঠেকালেন ছবিটার ওপর। তাই দেখে চেঁচিয়ে উঠলেন হুইসলার,‘আরে করেন কী! রংটা এখনও কাঁচা রয়েছে। এইমাত্র মেঘটা আমি এঁকেছি।’

মার্ক টোয়েন জবাব দিলেন,‘অত চিন্তিত হওয়ার কিছু নেই। আমার হাতে দস্তানা পরা আছে, আশা করি রং লাগবে না।’

আরেকটি ঘটনা
এক পার্টিতে যখন স্বর্গ আর নরক কেমন তা নিয়ে জোর আলোচনা চলছে। পাশেই তখন মার্ক টোয়েন বসে মদ্যপান করছিলেন। কোনো কথা বলছেন না। তাই দেখে এক তরুণী তার কাছে এসে বলল,‘কী ব্যাপার? আপনি কিছু বলুন।’

মার্ক টোয়েন বললেন, ‘মাফ করবেন ম্যাডাম, আমি এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করব না। কারণ ওই দুই জায়গায় আমার অনেক আত্মীয়স্বজন বেড়াতে গেছেন!’

লেখা: সংগৃহীত
ছবি: সংগৃহীত

প্রিয় পাঠক, আপনিও অংশ নিতে পারেন আমাদের এ আয়োজনে। আপনার মজার (রম্য) গল্পটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়। লেখা মনোনীত হলেই যে কোনো শুক্রবার প্রকাশিত হবে।

কেএসকে/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]