রাবিতে পুলিশ সদস্যসহ ৩ যুবককে পেটালো ছাত্রলীগ

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক রাবি
প্রকাশিত: ০৮:১৬ পিএম, ১২ আগস্ট ২০১৮

মাদক সেবনের অভিযোগে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) পুলিশ কনস্টেবলসহ তিন বহিরাগত যুবককে বেধড়ক পিটিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

শনিবার রাত ১২টা থেকে রাত ৩টা পর্যন্ত শহীদ শামসুজ্জোহা হলের অতিথি কক্ষে আটকে রেখে তাদের মারধর করা হয়। এতে দুইজনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহতরা হলেন- পুলিশ কনস্টেবল আব্দুল মোতালেব, মোটরসাইকেল মেকানিক সাজ্জাদ ও আলিমউদ্দিন। আব্দুল মোতালেবের বাড়ি সিরাজগঞ্জে, সাজ্জাদ ও আলিমের বাড়ি নগরীর শিরোইল কলোনিতে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, শনিবার রাতে শহীদ শামসুজ্জোহা হলে ছাত্রলীগকর্মী জাহিদের ১৩৪ নম্বর কক্ষে বহিরাগত তিন যুবক আসে। তারা মাদক সেবন করছে এমন অভিযোগে তাদের ধাওয়া করে হল শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এ সময় ছাত্রলীগকর্মী জাহিদ পালিয়ে গেলেও বহিরাগত তিনজনকে হলের অতিথি কক্ষে নিয়ে প্রায় দুই ঘণ্টা ধরে বেধড়ক মারধর করে পুলিশে সোপর্দ করে নেতাকর্মীরা।

জোহা হলের দায়িত্বপ্রাপ্ত রাবি ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি গুফরান গাজী বলেন, রাতে তিনজন বহিরাগত হলে প্রবেশ করে। এর আগেও তাদের হলে দেখা গেছে। রাত ১২টায় জাহিদের সঙ্গে মাদক সেবনকালে তাদেরকে হাতেনাতে ধরি। পরে রাত ২টার দিকে ছাত্রলীগের সভাপতি ও সম্পাদকের উপস্থিতিতে পুলিশে সোপর্দ করা হয়।

তবে বহিরাগত যুবকরা মাদক সেবনের বিষয়টি অস্বীকার করেন। তারা দাবি করেন, পুরাতন মোটরসাইকেল কেনার কথা বলে আমাদের এখানে নিয়ে আসা হয়। পরে তারা আমাদের মারধর করে। আমরা কোনো ধরনের মাদক সেবন করিনি। আমাদের মোটরসাইকেলটি জোহা হল গেটে রয়েছে।

এ বিষয়ে রাবি ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আহমেদ রুনু বলেন, মাদক সেবনকালে হাতেনাতে বহিরাগতদের আটক করে নেতাকর্মীরা। পরে আমি ও সভাপতি হলে গিয়ে তাদের মতিহার থানা পুলিশে সোপর্দ করি।

মতিহার থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহাদাৎ হোসেন জানান, ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা দুইজন যুবককে পুলিশে সোপর্দ করেছে। তাদেরকে বর্তমানে রামেক হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। পরবর্তীতে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরএআর/জেআইএম

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com

আপনার মতামত লিখুন :