ছাত্রলীগের সঙ্গে ছেলের ঝামেলা, ক্ষমা চাইলেন বাবা

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক রাবি
প্রকাশিত: ০৭:৩৬ পিএম, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৮

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) আবাসিক হলের গাছ থেকে ডাব পাড়াকে কেন্দ্র করে গোফরান গাজী নামে এক ছাত্রলীগ নেতার সঙ্গে শিক্ষার্থীদের হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। সোমবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের সোহরাওয়ার্দী হলের পুকুরের পাড়ে এ ঘটনা ঘটে। গোফরান গাজী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি

হল সূত্রে জানা যায়, বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রাফিক ডিজাইন বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী মেহেদী হাসান পুলকের নেতৃত্বে কয়েকজন শিক্ষার্থী বিশ্ববিদ্যালয়ের সোহওয়ার্দী হল সংলগ্ন পুকুর পাড়ে নারিকেল গাছে ডাব পাড়তে আসেন। এ সময় গোফরান গাজী ডাব পাড়তে তাদের নিষেধ করলে উভয়ের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে উভয়ের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে।

এ বিষয়ে ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি গোফরান গাজী বলেন, পুলক কয়েকজন বহিরাগতকে নিয়ে ক্যাম্পাসে ডাব পাড়তে আসে। তাদের নিষেধ করলে তারা আমাদের ধাওয়া দেয়। এতে আমিসহ কলা অনুষদের যুগ্ম-সম্পাদক নাহিদ আহত হই।

এদিকে পুলকের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি। তবে তার বাবা বিশ্ববিদ্যালয় জিয়া হলের প্রহরী তাজুল ইসলাম বলেন, ছেলে সহপাঠীদের সঙ্গে ক্যাম্পাসে ডাব পাড়ছিল। এ সময় ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা আমার ছেলেকে মারধর করে। পরে আমি টুকিটাকি চত্বরে গিয়ে ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের কাছে ক্ষমা চেয়েছি।

এ বিষয়ে রাবি ছাত্রলীগের সভাপতি গোলাম কিবরিয়া বলেন, ঘটনার বিষয়ে পুলকের বাবা আমাদের কাছে এসেছিলেন। বিষয়টি মীমাংসা করে দেয়া হবে।

আরএআর/আরআইপি

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com

আপনার মতামত লিখুন :