ইবিতে সংঘর্ষের পর আহত সাধারণ সম্পাদক গ্রেফতার

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, কুষ্টিয়া
প্রকাশিত: ০৯:৩১ পিএম, ২১ জানুয়ারি ২০২০

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষের পরে আহত সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল ইসলাম রাকিবকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার বিকেলে কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে চিকিৎসারত অবস্থায় তাকে গ্রেফতার করা হয় বলে নিশ্চিত করেন পুলিশ সুপার তানভীর আরাফাত।

সংঘর্ষের ঘটনায় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি রবিউল ইসলাম পলাশ ও সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল ইসলাম রাকিবসহ ১১ জনের বিরুদ্ধে ইবি থানায় একটি মামলা হয়েছে। ছাত্রলীগকর্মী ও আইন বিভাগের ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী হানিফ হোসাইন বাদী হয়ে মামলাটি করেন। এতে অজ্ঞাত আরও ২০-২৫ জনকে আসামি করা হয়েছে।

এদিকে ইবির সংঘর্ষের ঘটনা তদন্তে অধ্যাপক ড. সেলিনা নাসরিনকে আহ্বায়ক করে তিন সদস্যের একটি কমিটি করেছে প্রশাসন। কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন- অধ্যাপক ড. তপন কুমার জোদ্দার ও সহযোগী অধ্যাপক ড. মোস্তফা জামাল হ্যাপি। কমিটিকে সাত কার্যদিবসের মধ্যে তদন্ত রিপোর্ট জমা দিতে বলা হয়েছে।

isl

মামলার ব্যাপারে সভাপতি রবিউল ইসলাম বলেন, সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে আমাদের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। মুজিববর্ষ উপলক্ষে নেতাকর্মীরা ক্যাম্পাসে গেলে পদবঞ্চিতরা আমাদের ওপর হামলা করে।

ইবি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহাঙ্গির আরিপ বলেন, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আমরা মাঠে ছিলাম। ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল ইসলামকে ইতোমধ্যে একটি মামলায় গ্রেফতার করা হয়েছে। এখন পরিস্থিতি শান্ত।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. রাশিদ আসকারী বলেন, অধ্যাপক ড. সেলিনা নাসরিনকে আহ্বায়ক করে তিন সদস্যের একটি কমিটি করা হয়েছে। কেন, কী জন্য এবং কীভাবে এ ঘটনা ঘটল, তদন্তপূর্বক আগামী সাতদিনের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে।

এমএআর/এমএস

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - [email protected]