গোপালগঞ্জে দফায় দফায় সংঘর্ষ, ওসিসহ আহত ২৫

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি গোপালগঞ্জ
প্রকাশিত: ১২:৪১ এএম, ২২ নভেম্বর ২০২১
প্রতীকী ছবি

গোপালগঞ্জে শেখ সায়েরা খাতুন মেডিকেল কলেজ ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষে ঘটনা ঘটেছে। এসময় মেডিকেল কলেজের বিভিন্ন ভবনের কাঁচ ভাঙচুর হয়েছে।

এই ঘটনায় সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি), বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক ও সংবাদকর্মীসহ কমপক্ষে ২৫ জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে পাঁচজনকে গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

রোববার রাত ৯টা থেকে থেমে থেমে দুই প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে বেশ কয়েক রাউন্ড টিয়ার সেল নিক্ষেপ করে। রাত পৌনে ১২টায় পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।

শেখ সায়েরা খাতুন মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডা. জাকির হোসেন বলেন, মেডিকেল কলেজের ছাত্রীদের ইভটিজিং করাকে কেন্দ্র করে এ সংঘর্ষের সূচনা হয়। কলেজের মাঠে প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা নিয়মিত ক্রিকেট খেলে। এসময় মাঠের পাশ দিয়ে মেডিকেল কলেজের ছাত্রীরা গেলে তাদের উদ্দেশ করে নানা মন্তব্য করে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। যে কারণে ওই মাঠে ক্রিকেট খেলতে নিষেধ করে কলেজের শিক্ষার্থীরা। এই নিষেধ করাকে কেন্দ্র করে এই অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটেছে।

তবে প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীরা ছাত্রীদের ইভটিজিংয়ের বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, আমাদের মাঠে খেলতে দেবে না বলে এই ঘটনা সাজানো হয়েছে।

মেহেদী হাসান/এআরএ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]