দিনাজপুরে বেড়েই চলেছে শীত, একজনের মৃত্যু

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি দিনাজপুর
প্রকাশিত: ১২:২৯ পিএম, ০৮ জানুয়ারি ২০১৮

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে শীতে একজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। চলতি শীত মৌসুমে আজ সোমবার দিনাজপুরে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৩ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলিসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। একই তাপমাত্রা ছিল ৫ বছর আগে ২০১৩ সালে।

জানা যায়, দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলার ছয়ঘট্টি গ্রামের কৃষক নুরুল মিয়া (৫৫) রোববার দুপুরে জমিতে সেচ দিচ্ছিলেন। এসময় ঠান্ডায় হাত পা অবশ হয়ে নুরুল মিয়া মাটিতে পড়ে যান। স্থানীয় লোকজন দেখতে পেয়ে উদ্ধার করে ঘোড়াঘাট হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত্যু ঘোষণা করেন।

দিনাজপুর আঞ্চলিক আবহাওয়া অফিসের তথ্যমতে, শুক্রবার দিনাজপুরের তাপমাত্রা ছিল ৮.৪ ডিগ্রি, শনিবার ৬.৮ ডিগ্রি, রোববার তা কমে ৫.১ ডিগ্রি ও আজ সোমবার ৩.২ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নেমেছে।

পরিস্থিতি সামাল দিতে দিনাজপুর জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে জরুরি ভাবে এক লাখ কম্বল চেয়ে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ে ফ্যাক্স পাঠানো হয়েছে। সোমবার সকালে দিনাজপুর আঞ্চলিক আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তোফাজ্জল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তোফাজ্জল ইসলাম বলেন, আজকের তাপমাত্রা চলতি মৌসুমে রেকর্ডকৃত সর্বনিম্ন। এটি গত শীত মৌসুমের তাপমাত্রাকেও ছাড়িয়ে গেছে। গত মৌসুমে ছিল ৫.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াম। আগামী ২-৩ দিন পর্যন্ত এই অবস্থা বিরাজমান থাকতে পারে। আগামী ৯ থেকে ১০ জানুয়ারির মধ্যে অবস্থার উন্নতি হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

এদিকে শীতে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে দিনাজপুরের স্বাভাবিক জীবনযাত্রা। তীব্র শীতে ছিন্নমূল মানুষের যেমন বাড়ছে দুর্ভোগ, তেমনি ঠান্ডায় কাজ করতে না পারায় শ্রমজীবীরা পড়েছেন বিপাকে। এছাড়া জরুরি প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে তেমন বের হচ্ছে না সাধারণ মানুষ। যানবাহন চলাচল করেছে হেডলাইট জ্বালিয়ে। ট্রেনও ছেড়েছে বিলম্বে।

দিনাজপুর ত্রাণ দুর্যোগ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তা মকলেছুর রহমান জানান, এ পর্যন্ত দিনাজপুর জেলায় ৬৮ হাজার শীতবস্ত্র বিতরণ করা হয়েছে। অপরদিকে জরুরি ভিত্তিতে ১ লাখ কম্বল চেয়ে ত্রাণ দুর্যোগ ও পুনর্বাসন মন্ত্রণালয়ে ফ্যাক্স বার্তা পাঠানো হয়েছে।

এমদাদুল হক মিলন/এফএ/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :