নাশকতার অভিযোগ : ফতুল্লায় বিএনপি নেতাসহ আসামি শতাধিক

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি ফতুল্লা
প্রকাশিত: ০২:২৫ এএম, ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | আপডেট: ০৩:০৬ এএম, ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় নাশকতার পরিকল্পনার অভিযোগে মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক ও সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর মাকসুদুল আলম খন্দকার খোরশেদকে প্রধান আসামি করে ৪০ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা আরও ৫০ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এ মামলায় বিএনপি নেতা হারুন অর রশিদ, পল্টু, মিলন ও শাহিনকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। মঙ্গলবার রাত ১২টার দিকে ফতুল্লা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শাফিউল আলম বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন।

পুলিশ মামলায় উল্লেখ করেন, মঙ্গলবার রাত ১১ টার সময় ফতুল্লার কাশিপুর সম্রাট হল সংলগ্ন বিএনপি নেতা হারুন অর রশিদের রিকশার গ্যারেজে বসে মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক ও সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর মাকসুদুল আলম খন্দকার খোরশেদের নেতৃত্বে ঢাকা- মুন্সিগঞ্জ সড়ক অবরোধসহ বিভিন্ন স্থানে নাশকতার পরিকল্পনায় গোপন বৈঠক করছিল।

jagonews24

এ সংবাদে ফতুল্লা থানা পুলিশের দুটি টিম গিয়ে অভিযান চালাতে গেলে বিএনপির নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। এ সময় পুলিশ ৪ জনকে আটক করে। পরে ঘটনাস্থল থেকে কয়েকটি ককটেল, ও ইটপাটকেল উদ্ধার করা হয়।

মামলার আসামিরা হলো- মাকসুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ, রাশেদুর রহমান রশু, একরামুল কবির মামুন, হারুন অর রশিদ, পল্টু, মিলন ও শাহিনসহ ৪০ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা আরও ৫০ জন।

ফতুল্লা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামাল উদ্দিন মামলা দায়েরের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নাশকতার পরিকল্পনার সময় পুলিশ বিএনপির নেতাকর্মীদের বাধা দিতে গেলে তারা হামলা চালায় এবং ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায়। এ সময় বিএনপির ৪ নেতাকে আটক করা হয়। বাকিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

শাহাদাত হোসেন/এমআরএম