আসামি ধরতে গিয়ে হামলায় ৩ পুলিশ আহত

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি চুয়াডাঙ্গা
প্রকাশিত: ১০:৪৭ এএম, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

চুয়াডাঙ্গার জীবননগর উপজেলায় সাদা পোশাকে গ্রেফতারি পরোয়ানাভুক্ত এক আসামিকে গ্রেফতার করতে গিয়ে হাঁসুয়ার কোপে হাসাদাহ পুলিশ ফাঁড়ির তিন কনস্টেবল হয়েছেন। এ সময় হাঁসুয়া নিয়ে কাড়াকাড়ি করতে গিয়ে লিটন (৩০) নামে ওই আসামিও জখম হয়েছেন।

আহত পুলিশ সদস্য ও আসামিকে উদ্ধার করে জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। শনিবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে উপজেলার হাসাদাহ গ্রামের মাঝপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার হাসাদাহ গ্রামের মাঝপাড়ার সোনা মন্ডলের ছেলে লিটন হোসেনের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ রয়েছে। তার বিরুদ্ধে চুয়াডাঙ্গা ও মাগুরাসহ আশেপাশের জেলায় চুরি, ছিনতাই, অস্ত্র ও জাল টাকা কারবারীর একাধিক মামলা রয়েছে। তিনি দুটি মামলার গ্রেফতারি পরোয়ানাভুক্ত আসামি। দীর্ঘদিন ধরে তিনি আত্মগোপনে রয়েছেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে হাসাদাহ পুলিশ ফাঁড়ির তিন কনেস্টবল শ্রী সৈকত, রেজন ও রাশেদুল রাতে সাদা পোশাকে লিটনকে গ্রেফতার করতে যান। গ্রেফতারের চেষ্টাকালে লিটন তার নিকট থাকা হাঁসুয়া নিয়ে ওই তিন পুলিশের ওপর হামলা করে। এ সময় পুলিশ সদস্যরা হাঁসুয়া কেড়ে নেয়ার চেষ্টা করলে হাঁসুয়ার আঘাতে তারা আহত হন।

জীবননগর হাসপাতালের কর্তব্যরত মেডিকেল অফিসার ডা. রোকনুজ্জামান বলেন, আহত সবাই আশঙ্কামুক্ত। তারা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

জীবননগর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) নাহিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, লিটন আসলে সন্ত্রাসী প্রকৃতির। তার বিরুদ্ধে মাগুরা জেলায় অস্ত্র মামলা ছাড়াও চুয়াডাঙ্গা আদালতে তার বিরুদ্ধে দুটি জাল নোটের মামলা বিচারাধীন। ওই মামলা সে গ্রেফতারি পরোয়ানাভুক্ত আসামি।

সালাউদ্দীন কাজল/আরএআর/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :