পায়ুপথে ইয়াবা নিয়ে চিৎকার দিয়ে মৃত্যু!

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি কুমিল্লা
প্রকাশিত: ১০:১৫ পিএম, ২২ এপ্রিল ২০১৮

ভারত থেকে পায়ুপথে একটি প্যাকেটে করে ২৩৫ পিস ইয়াবা নিয়ে কুমিল্লা সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে প্রবেশের পর অচেতন হয়ে পড়া জালাল হোসেন (৩৭) নামে এক ইয়াবা ব্যবসায়ীকে হাসপাতালে নেয়ার পর মৃত্যু হয়েছে।

রোববার বিকেল ৪টার দিকে জেলার আদর্শ সদর উপজেলার ভারত-সীমান্তবর্তী শাহপুর নামক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। তিনি জেলার চান্দিনা উপজেলার খিরাশার মহনপুর গ্রামের মনিরুল ইসলামের ছেলে।

রাতে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ওই মরদেহটি সদর হাসপাতালে সুরতহাল তদন্ত শেষে ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

পুলিশ, বিজিবি ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, জালাল হোসেন রোববার বিকেলে ভারত সীমান্তবর্তী কুমিল্লার আদর্শ সদর উপজেলার শাহপুর এলাকা দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশের পর অচেতন হয়ে পড়ে।

এ সময় স্থানীয় লোকজন ও বিজিবি টহল দলের সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে বিজিবির গাড়িতে তোলার সময় জালাল হোসেনের পায়ুপথ থেকে ইয়াবাভর্তি নীল রঙয়ের একটি প্যাকেট বের হয়ে আসে। তখন ইয়াবাসহ তাকে কুমিল্লা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়।

হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. গোলাম সামদানী রাব্বি জানান, তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন। পায়ুপথে ইয়াবা বের হয়ে আসার বিষয়টি জেনে তার পেটে আর কোনো কিছু আছে কিনা তা জানার জন্য এক্স-রে করা হয়েছে। রিপোর্ট পাওয়ার পর বিস্তারিত বলা যাবে।

কুমিল্লা ১০ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল খন্দকার গোলাম সারওয়ার জানান, ভারত সীমান্ত পেরিয়ে বাংলাদেশে সীমান্তের শাহপুর এলাকায় প্রবেশের পর সে ‘আমাকে বাঁচান’ বলে চিৎকার দিয়ে অচেতন হয়ে পড়ে। তার চিৎকার শুনে স্থানীয় লোকজনসহ বিজিবি সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে। এ সময় তার পায়ুপথ থেকে মলসহ ইয়াবাভর্তি নীল রঙয়ের প্যাকেট বের হয়ে আসে। পরে হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

মো: কামাল উদ্দিন/এএম/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :