‘ইসি বরিশালে সুষ্ঠু নির্বাচনের পরিবেশ তৈরি করতে পারেনি’

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:১১ পিএম, ২৮ জুলাই ২০১৮

বাসদ মেয়র প্রার্থী ডা. মনীষা চক্রবর্তী বলেছেন, সুষ্ঠু-নিরপেক্ষ নির্বাচনের জন্য দরকার একটি সমান সুযোগের পরিবেশ। কিন্তু নির্বাচন কমিশন সে পরিবেশ এখনও পরিপূর্ণভাবে তৈরি করতে পারেনি।

শনিবার বেলা ১১টার দিকে নগরীর ফকিরবাড়ি রোড বাসদ কার্যালয়ে ‘বরিশাল সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন এবং নির্বাচনের পরিবেশ’ নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন।

ডা. মনীষার অভিযোগ, কমিশনের পক্ষ থেকে রিটার্নিং কর্মকর্তা মুখে আচরণবিধি ভঙ্গ করলে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে হুঙ্কার দিলেও বাস্তবে শাসক দলের প্রার্থী প্রথম দিন থেকেই আচরণবিধি লঙ্ঘন করলেও কার্যকর কোনো ব্যবস্থা নিতে পারেনি ইসি। অথচ অন্যান্য প্রার্থীর বেলায় পান থেকে চুন খসলেই নানা হয়রানি করা হয়েছে। এক প্রার্থী সরাসরি ধর্মকে ব্যবহার করলেও তাকে শুধু সতর্ক করেই ক্ষান্ত দিয়েছে। বিভিন্ন এলাকায় বস্তিবাসী, রিকশাচালক আমার পক্ষে যারা প্রচার কাজ করেছে তাদেরকে ভয়ভীতি প্রদর্শন করা হচ্ছে। কাউকে কাউকে মারধরও করা হয়েছে। নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ করলেও এর কোনো প্রতিকার পাইনি।

সরকার দলীয় প্রার্থীর পক্ষে সরকারি কর্মকর্তা, এমপি, উপজেলা চেয়ারম্যান, পৌরসভার মেয়ররা প্রচার অভিযান চালাচ্ছে যা আচরণবিধির সুস্পষ্ট লঙ্ঘন। নির্বাচন কমিশন এ সব বিষয় অবগত থাকলেও কোনো ব্যবস্থা নেয়নি।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মেয়র প্রার্থী ডা. মনীষা চক্রবর্তী বলেন, একটি বিশেষ মহল আমার সম্পর্কে মিথ্যা অপপ্রচার চালাচ্ছে- আমি বসে গেছি। আমি স্পষ্ট করে বলতে চাই, এ ধরনের অপপ্রচারে বিভ্রান্ত হবেন না। আমি নির্বাচনে দাঁড়িয়েছি বসে পড়ার জন্য নয়। আমি জয় লাভের জন্য নির্বাচন করছি কারণ আমার জয় লাভের ওপর বরিশালের শ্রমজীবী সাধারণ মানুষের ভবিষ্যৎ নির্ভর করছে। আমি কখনোই শ্রমজীবী গরিব মানুষের ভালোবাসার প্রতি বিশ্বাসঘাতকতা করতে পারি না। আমার ওপর বিশ্বাস রাখুন, আপনাদের ওপরও আমার বিশ্বাস আছে, ভরসা আছে।

এমতাবস্থায়, বরিশালবাসী শঙ্কিত। তারা তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারবে কিনা? নির্বিঘ্নে ভোটকেন্দ্রে যেতে ও ভোট দিয়ে বাড়ি ফিরতে পারবে কি-না? এ বিষয়ে আশঙ্কা প্রকাশ করছেস তিনি। আমার ভোট আমি দেবো, দেখে শুনে যোগ্য প্রার্থীকে দেবো- এটা কী করতে পারব? নাকি খুলনা-গাজীপুর মার্কা ভোটের মাধ্যমে জনগণের সংবিধান স্বীকৃত ভোটের অধিকারকে প্রহসনে পরিণত করা হবে বলে তিনি লিখিত বক্তব্যে উল্লেখ করেন।

এছাড়া আগামী ৩০ জুলাই বরিশাল সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হলে জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন- বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ বরিশাল জেলা শাখার সভাপতি ইমরান হাবিব রুমন, জেলা কমিটির সদস্য বদরুদ্দোজা সৈকত, এইচ ইমন, মিঠুন চক্রবর্ত্তী ও শহীদুল ইসলামসহ প্রমুখ।

সাইফ আমীন/আরএ/জেআইএম