ছেলেকে নিয়ে বাবার গুমের নাটক

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পিরোজপুর
প্রকাশিত: ০৮:৪২ পিএম, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮

পিরোজপুরের কাউখালী উপজেলায় মিথ্যা গুম মামলা দিয়ে প্রতিপক্ষকে ফাঁসানোর পর গুম হওয়া যুবক মো. মহারাজ তালুকদারকে (১৯) উদ্ধার করেছে পুলিশ।

ঘটনার ১৬ দিন পর রোববার সকালে গুম হওয়া যুবককে কাউখালী মহাবিদ্যালয়ের পেছনের নদীর পাড়ের রাস্তা থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। উদ্ধার মহারাজ তালুকদার উপজেলার ভলবদ্রপুর গ্রামের লিটন তালুকদারের ছেলে। তাকে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

থানা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার ভলবদ্রপুর গ্রামের লিটন তালুকদারের ছেলে মহারাজ তালুদারকে গত ৮ সেপ্টেম্বর বিকেল ৩টায় ভলবদ্রপুর লঞ্চঘাট সড়ক থেকে অপহরণের পর গুম করা হয় বলে অভিযোগ করেন বাবা। এ ঘটনায় প্রতিপক্ষ মো. ছাব্বির হোসেনসহ চারজনকে আসামি করে একটি গুমের মামলা করা হয়।

পিরোজপুর অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে ভিকটিম যুবককে উদ্ধারে পুলিশকে নির্দেশ দেন। অনুসন্ধান চালিয়ে ঘটনার ১৬ দিন পর ওই যুবককে উদ্ধার করে পুলিশ।

উদ্ধার হওয়া যুবক মো. মহারাজ তালুদার থানা পুলিশকে জানান, গুমের মামলার বিষয়ে তার কিছুই জানা নেই। তাকে কেউ অপহরণ ও গুম করেনি।

সাজানো মামলায় অভিযুক্ত যুবক আবুল কালাম বলেন, ব্যবসায়ীদের কলহের জের ধরে আমাকে এবং আমার পরিবারকে হয়রানি করতে এ মিথ্যা গুম মামলা করা হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে কাউখালী থানা পুলিশের ওসি মো. কামরুজ্জামান তালুকদার বলেন, গুম মামলাটি হয়রানিমূলক। তদন্ত করে ভিকটিমকে উদ্ধার করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

হাসান মামুন/এএম/জেআইএম

আপনার মতামত লিখুন :