নিম্নমানের ভবন দেখে ফিরে গেলেন এমপি

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক বগুড়া
প্রকাশিত: ০৬:০২ পিএম, ১৩ অক্টোবর ২০১৮

নিম্নমানের কাজ হওয়ায় বগুড়ার সারিয়াকান্দির কর্ণিবাড়ি ইউনিয়নের দুর্গম চরে শোনপচা উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন অ্যাকাডেমিক ভবন উদ্বোধন করেননি স্থানীয় সংসদ সদস্য আব্দুল মান্নান। তিনি এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে গিয়ে ভবন নির্মাণে অনিয়ম দেখে ক্ষোভ প্রকাশ করে ফিরে আসেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতরের আওতায় ৭০ লাখ ৫০ হাজার টাকা ব্যয়ে শোনপচা উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন অ্যাকাডেমিক ভবনের নির্মাণ কাজ শুরু করা হয়। এই কাজের ঠিকাদার ছিলেন ইমরান হোসেন রিবন নামে এক ব্যক্তি। দুর্গম এলাকা হওয়ার কারণে ঠিকাদার ইচ্ছেমতো তড়িঘড়ি করে নির্মাণ কাজ শেষ করেন। এতে নিম্নমানের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহার করা হয়। ইট, মাটি মিশ্রিত বালু ও অল্প পরিমাণে সিমেন্ট ব্যবহার করা হয়। যার কারণে নতুন এই ভবনটি উদ্বোধনের আগেই দেয়ালের পলেস্তারা খুলে পড়তে থাকে। ইটগুলো মাটির মতো গুড়া হয়ে যায়।

ভবনটির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন উপলক্ষে শনিবার বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে বিশাল জনসভার আয়োজন করা হয়। উদ্বোধন করার জন্য বৈরী আবহাওয়ার মধ্যে নদী পথে দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে বিকেলে বিদ্যালয়ে পৌঁছান বগুড়া-১ (সারিয়াকান্দি-সোনাতলা) আসনের সংসদ সদস্য আব্দুল মান্নান।

নতুন ভবন পরিদর্শনকালে তিনি দেখেন ভবনটি নির্মাণে নিম্নমানের ইট, বালু, সিমেন্ট ব্যবহার করা হয়েছে। উদ্বোধন হতে না হতেই ভবনের পলেস্তারা খুলে পড়ছে। এ সময় তিনি ভবনের উদ্বোধন না করে ক্ষোভ প্রকাশ করে সরাসরি জনসভার মঞ্চে গিয়ে বসেন। তারপর তিনি শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতরের নির্বাহী প্রকৌশলীকে তলব করেন।

এ ব্যাপারে কর্ণিবাড়ি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আজাহার আলী বলেন, ভবনটি নির্মাণে প্রথম থেকেই অনিয়ম করা হয়েছে। ডোমারসিন বালু ব্যবহার না করে চরের লোকাল বালু দিয়ে ঢালাই ও প্লাস্টারের কাজ করা হয়েছে। ঠিকাদার প্রভাবশালী হওয়ায় কর্তৃপক্ষের কাছে কেউ কোনো অভিযোগ করেনি।

এ ব্যাপারে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতরের নির্বাহী প্রকৌশলী আলতাফ হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, কাজের কিছু ত্রুটি-বিচ্চুতি রয়েছে। কাজের ফাইনাল বিল প্রদান করা হয়নি। কাজ সম্পন্ন হওয়ার পড় চূড়ান্ত বিল প্রদান করা হবে।

লিমন বাসার/আরএআর/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :