ছাত্রীনিবাসে ঢুকে ছাত্রীকে লাঞ্ছিত, বিক্ষোভ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পাবনা
প্রকাশিত: ০৮:৫১ পিএম, ১৯ জানুয়ারি ২০১৯

শহরের রাধানগরের একটি ছাত্রীনিবাসে ঢুকে পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (পাবিপ্রবি) এক ছাত্রীকে লাঞ্ছিতের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনার প্রতিবাদে শনিবার ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ করে শিক্ষার্থীরা। ক্লাস বর্জন করে ঘটনায় জড়িতের শাস্তি চেয়ে ঘণ্টাব্যাপী পাবনা-ঢাকা সড়ক অবরোধ করে তারা। এ সময় মহাসড়কে দীর্ঘ যানযটের সৃষ্টি হয়।

পাবিপ্রবির শিক্ষার্থীরা জানান, শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে পাবনা শহরের রাধানগর ডিগ্রি বটতলায় ‘ঝর্ণা ভিলা’ ছাত্রীনিবাসে এক ছাত্রীকে লাঞ্ছিত করা হয়। ছাত্রীনিবাসের মালিকের ভাতিজা আসিফ ইকবাল চিন্ময় ছাত্রীনিবাসে ঢুকে কয়েকজন ছাত্রীকে গালিগালাজসহ এক ছাত্রীকে সেখান থেকে বের করে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে।

এ সময় ছাত্রীদের চিৎকারে মেস মালিক ও তার স্ত্রী এসে ছাত্রীটিকে উদ্ধার করে। এরপর ছাত্রীরা মোবাইলে ঘটনাটি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে জানায়। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. প্রীতম কুমার দাস পাবনা সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওবাইদুল হককে নিয়ে ঘটনাস্থলে যান।

এ ঘটনার প্রতিবাদে শনিবার পাবিপ্রবিতে শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ করে। বেলা সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত পাবিপ্রবির সামনে পাবনা-ঢাকা মহাসড়ক অবরোধ করে তারা।

পাবনা সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ওবাইদুল হক বলেন, অভিযোগ পাওয়ার পর রাতেই ওই বখাটেকে গ্রেফতার করা হয়। শনিবার দুপুরে এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। এখন পরিস্থিতি স্বাভাবিক।

বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি মাহমুদ চৌধুরী আসিফ বলেন, গতকাল সন্ধ্যা ৬টায় এ ঘটনায় ঘটলেও আসামিকে রাত ১১টায় গ্রেফতার করা হয়। এত সময়ক্ষেপণ কেন? এরকম ঘটনায় দ্রুত পদক্ষেপ নিতে হবে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. প্রীতম কুমার দাস বলেন, আমরা দোষীর শাস্তি চাই। এরই মধ্যে মামলা হয়েছে। শিক্ষার্থীরাও ব্চিার চেয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক রয়েছে।

একে জামান/এএম/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :