ধর্ষণের সময় বাবু মিয়ার পুরুষাঙ্গ কেটে দিলেন গৃহবধূ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি গাইবান্ধা
প্রকাশিত: ০৯:৫১ পিএম, ০২ মে ২০১৯

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় ধর্ষণের সময় বাবু মিয়া (৪০) নামে এক ব্যক্তির পুরুষাঙ্গ কেটে দিয়েছেন এক গৃহবধূ। মঙ্গলবার রাতে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার কামারদহ ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, উপজেলার কামারদহ ইউনিয়নের ফাঁসিতলা বাজারের চায়ের দোকানদার বাবু মিয়াকে এক গৃহবধূ সুদে টাকা ধার দেন। ওই টাকা লেনদেনের মাধ্যমে বাবু মিয়ার সঙ্গে গৃহবধূর সম্পর্ক তৈরি হয়। সম্পর্কের সূত্র ধরে মঙ্গলবার রাতে কৌশলে ওই গৃহবধূর ঘরে ঢুকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায় বাবু। এ সময় নিজের সম্ভ্রম রক্ষার জন্য ধারালো অস্ত্র দিয়ে বাবু মিয়ার পুরুষাঙ্গ কেটে ফেলেন গৃহবধূ।

বাবু মিয়ার চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে আসেন। পরে তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে বগুড়া ঠেঙ্গামারা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে এখনো তার জ্ঞান ফেরেনি বলে জানিয়েছে চিকিৎসকরা।

এদিকে এ ঘটনার পর নিরাপত্তার কারণে গাঢাকা দিয়েছেন ওই গৃহবধূ। এ ঘটনায় ফাঁসিতলা এলাকায় ব্যাপক সমালোচনার ঝড় বইছে।

বাবু মিয়ার পরিবার জানায়, ওই গৃহবধূ খুবই খারাপ কাজ করেছে। বাবু মিয়ার অঙ্গহানি করে কাজটা ঠিক করেনি। আমাদের রোগী সুস্থ হলে আলোচনা করে এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

গোবিন্দগঞ্জ থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক আবুল কালাম আজাদ বলেন, বিষয়টি শুনেছি। তবে এ ঘটনায় কেউ লিখিত অভিযোগ দেয়নি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

জাহিদ খন্দকার/এএম/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]