স্কুলছাত্রীকে ৬ দিন আটকে রেখে ধর্ষণ করল রাজমিস্ত্রি

উপজেলা প্রতিনিধি উপজেলা প্রতিনিধি সাভার (ঢাকা)
প্রকাশিত: ০৮:২৩ পিএম, ০২ জুলাই ২০১৯

ঢাকার ধামরাই উপজেলায় প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ষষ্ঠ শ্রেণির এক শিক্ষার্থীকে অপহরণের পর ধর্ষণের ঘটনায় এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

একই সঙ্গে ধর্ষণের শিকার ছাত্রীকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওসিসিতে পাঠানো হয়েছে।

সোমবার গভীর রাতে ফরিদপুর থেকে শাহাবুদ্দিন (২২) নামের ওই যুবককে আটক করা হয়। এর আগে ২৬ জুন ধামরাই পৌর এলাকার পাঠানটোলা মহল্লায় বসবাসরত ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীর পরিবার থানায় একটি জিডি করে।

আটক শাহাবুদ্দিন ফরিদপুর জেলার বোয়ালমারী থানার আতিয়ার মোল্লার ছেলে। সে ধামরাইয়ের পাঠানতোলা এলাকায় ভাড়া বাসায় থেকে রাজমিস্ত্রির কাজ করতো।

ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রীর মা বলেন, ২৬ জুন মেয়েকে কোথাও খুঁজে না পেয়ে সন্ধ্যায় ধামরাই থানায় একটি জিডি করি। এরপর গতকাল সোমবার গভীর রাতে ফরিদপুর থেকে আমার মেয়েকে অসুস্থ অবস্থায় উদ্ধার করে পুলিশ।

ধামরাই থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) আব্দুল লতিফ বলেন, নিখোঁজের অভিযোগের ভিত্তিতে প্রযুক্তির সহায়তায় ওই শিক্ষার্থীর অবস্থান ফরিদপুরে নিশ্চিত হয় পুলিশ। পরে বোয়ালমারী থানার চান্দিনা এলাকায় শাহাবুদ্দিনের খালার বাসা থেকে অসুস্থ অবস্থায় ওই শিক্ষার্থীকে উদ্ধার করা হয়। এ সময় ছাত্রী জানায় তাকে অপহরণের পর ছয়দিন আটকে রেখে ধর্ষণ করা হয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত শাহাবুদ্দিনকে আটক করা হয়।

এসআই আব্দুল লতিফ আরও বলেন, ধর্ষণের শিকার ছাত্রীকে উদ্ধার করে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওসিসিতে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

আল-মামুন/এএম/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]