ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ব্যাংকের নৈশপ্রহরী খুন

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ব্রাহ্মণবাড়িয়া
প্রকাশিত: ০১:০০ এএম, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০

বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক লিমিটেডের (বিডিবিএল) ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ উপজেলা শাখার নৈশপ্রহরী রাজেশ বিশ্বাসকে (২৩) খুন করে ব্যাংক থেকে টাকা লুটের চেষ্টা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা।

শনিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) রাত ১১টার দিকে আশুগঞ্জ গোলচত্বর সংলগ্ন বিডিবিএল শাখা ভবনের ভেতর থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় রাজেশের রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রাজেশ সিলেটের জকিগঞ্জ উপজেলার চান্দপুর গ্রামের ক্ষিরোদ বিশ্বাসের ছেলে।

খবর পেয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ আনিসুর রহমান ঘটনাস্থলে আসেন। পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি) ও পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের পৃথক দুটি বিশেষ দলও ঘটনাটি তদন্তে ঘটনাস্থলে এসেছেন।

ব্যাংক থেকে কোনো টাকা খোয়া গেছি কি-না সেটি ব্যাংক কর্তৃপক্ষ এখনও পুলিশকে নিশ্চিত করতে পারেনি। তবে ব্যাংকের ভেতরে গোপন স্থানে ক্যাশিয়ার ও সেকেন্ড অফিসারের রাখা টাকার ভল্টের দুটি চাবি খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। এছাড়া শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাত দুইটার পর থেকে ব্যাংকের ভেতর ও বাইরের ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরার কোনো ফুটেজও পায়নি পুলিশ।

পুলিশ জানিয়েছে, ব্যাংক ভবনের পেছন দিকের একটি জানালার গ্রিল কাটা অবস্থায় ছিল এবং ভেতরে আলমিরা ও ড্রয়ার ভাঙচুর করে টাকার ভল্ট ভাঙারও চেষ্টা করেছে দুর্বৃত্তরা। ভল্টের হাতল ভাঙা থাকলেও লক ছিল। শুক্রবার দিবাগত রাত দুইটার পর থেকে ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরার কোনো ফুটেজ পাওয়া যাচ্ছে না। দুর্বৃত্তরা হত্যাকাণ্ডের আগে ক্যামেরাগুলো অচল করে দেয় বলে ধারণা পুলিশের।

এসপি আনিসুর রহমান জানান, রাত সাড়ে ৮টার দিকে ব্যাংকের ভেতরে নৈশপ্রহরী রাজেশের মরদেহ পড়ে থাকার খবর পান তারা। এরপর পুলিশ ব্যাংকের ভেতরে মেঝেতে পড়ে থাকা অবস্থায় রাজেশের মরদেহ উদ্ধার করে। হত্যাকাণ্ডের ঘটনাটি খতিয়ে দেখছে পুলিশ। ব্যাংকের যারা নিরাপত্তারক্ষী ছিলেন, তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। পরে এ বিষয়ে বিস্তারিত বলা যাবে।

আজিজুল সঞ্চয়/এমএসএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]