প্রতিপক্ষের ভয়ে অবরুদ্ধ কৃষক পরিবার

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক বগুড়া
প্রকাশিত: ০৬:০১ পিএম, ১৮ এপ্রিল ২০২১

বগুড়ার ধুনটে জমিজমা নিয়ে পূর্ব বিরোধের জের ধরে খোদা বক্স নামে এক কৃষক পরিবারের বাড়িঘর ভাঙচুরের অভিযোগ উঠেছে। প্রতিপক্ষের ভয়ে নিজ বাড়িতে অবরুদ্ধ হয়ে কৃষক পরিবারটি দুর্বিষহ জীবনযাপন করছে।

এ ঘটনায় শনিবার (১৭ এপ্রিল) কৃষক খোদা বক্স বাদী হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার গোবিন্দপুর গ্রামের কৃষক খোদা বক্স সেখের সঙ্গে প্রতিবেশী আশাদুল ইসলামের দীর্ঘদিন ধরে জমিজমা নিয়ে বিরোধ চল আসছে। খোদা বক্সের বাড়ি থেকে বের হওয়ার বিকল্প কোনো পথ নেই। এ কারণে প্রতিপক্ষ আশাদুলের বাড়ি দিয়ে খোদা বক্স ও তার পরিবারের লোকজনকে যাতায়াত করতে হয়। প্রায় এক মাস আগে থেকে খোদা বক্সকে বাড়ির ওপর দিয়ে যাতায়াত করতে নিষেধ করে আশাদুল ইসলাম।

এ অবস্থায় শুক্রবার (১৬ এপ্রিল) দুপুরের পর বিষয়টি নিয়ে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে খোদা বক্সের বাড়িতে হামলা চালায় আশাদুল ও তার লোকজন। হামলাকারীরা খোদা বক্সের বাড়িঘর ও আসবাবপত্র ভাঙচুরসহ নগদ টাকা লুট করে নিয়ে যায়। এতে কৃষক খোদা বক্সের প্রায় ৪ লাখ টাকা ক্ষতি হয়েছে।

এ ঘটনায় আশাদুল ইসলামসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দেন। থানায় অভিযোগের পর আশাদুল ক্ষুব্ধ হয়ে খোদা বক্সের পরিবারকে বাড়ি থেকে বের হতে দিচ্ছেন না। ফলে পরিবার গবাদিপশু নিয়ে নিজ বাড়িতে অবরুদ্ধ হয়ে দুর্বিষহ জীবনযাপন করছেন তিনি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে কৃষক আশাদুল ইসলাম বলেন, ‘খোদা বক্স ও তার পরিবারের লোকজন আমার বাড়ির ওপর দিয়ে যাতায়াতের সময় ক্ষতি করে। এ কারণে তাদের বাড়ির ওপর দিয়ে যাতায়াত করতে নিষেধ করা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তাদের সঙ্গে কথা কাটাকাটি ও ধাক্কাধাক্কির ঘটনা ঘটেছে। বাড়িঘর ভাঙচুর কিংবা টাকা লুটের ঘটনাটি সঠিক নয়।’

ধুনট থানার সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) আব্দুল আওয়াল বলেন, কৃষকের অভিযোগটি সরেজমিন পরিদর্শন করা হয়েছে। গ্রামের মাতব্বররা বিষয়টি স্থানীয়ভাবে সমঝোতার উদ্যোগ নিয়েছেন। স্থানীয়ভাবে মীমাংসা না হলে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এসজে/এমকেএইচ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]