মাদারীপুরে তুচ্ছ ঘটনায় সংঘর্ষে নিহত ১

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি মাদারীপুর
প্রকাশিত: ০৩:১৬ পিএম, ২০ এপ্রিল ২০২১

মাদারীপুরের শিবচরে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে খবির শেখ (৬০) নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় অন্তত সাতজন আহত হয়েছেন।

সোমবার (১৯ এপ্রিল) সন্ধ্যা ৭টায় উপজেলার কাঠালবাড়ি ইউনিয়নের বাবু মোল্লার কান্দি গ্রামে এ সংঘর্ষ ঘটে।

নিহত খবির শেখ ওই এলাকার মৃত হাছেন শেখের ছেলে।

আহতরা হলেন, তাহমিনা (২৫), হোসনে আরা পাখি (৪৫), পারভেজ শেখ (৩৫), জসিম শেখ (৩৬), শান্ত (২৫), সিয়াম (১৮) ও নুরজাহান (৮০)।

jagonews24

পরিবার জানায়, কয়েকদিন আগে খবির শেখের চাচাতো ভাই শাহজাহান শেখ ও তার চাচাতো বোন হালিমার মধ্যে পাটকাঠি ভাগাভাগি নিয়ে দ্বন্দ্ব হয়। এর জেরে সোমবার বিকেলে ওই ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড সদস্য সাইদ বেপারীর মধ্যস্থতায় সালিশ বসে।

সালিশের শেষের দিকে প্রতিবেশী ফজলু মাদবর ও খবির শেখের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে ফজলু মাদবর ও তার বাড়ির লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে তার বাড়িতে হামলা চালায়।

এসময় খবির শেখসহ আটজন আহত হন। পরে আহতদের শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

তবে খবির শেখের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে ফরিদপুরের বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখান থেকে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য রেফার্ড করা হয়। সেখানে মঙ্গলবার (২০ এপ্রিল) বেলা ১১টায় তার মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় সোমবার রাতে ফজলু মাদবরসহ কয়েকজনকে আসামি করে থানায় মামলা করা হয়েছে।

jagonews24

নিহতের ছেলে পারভেজ বলেন, আমার বাবাকে ওরা মেরে ফেলেছে। আমি ওদের ফাঁসি চাই।

নিহতের চাচাতো ভাই শাহজাহান শেখ বলেন, সালিশের শেষের দিকে ফজলু মাদবর আর খবির শেখের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এরপর ফজলু মাদবর ও তার ভাইয়েরা মিলে আমার ভাইসহ পাঁচ-ছয়জনকে কুপিয়ে আহত করে। আজ আমার ভাই ঢাকায় মারা যান। আমি ওদের বিচার চাই।

শিবচর থানায় ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিরাজ হোসেন বলেন, সংঘর্ষের ঘটনায় এলাকায় পুলিশ পাঠানো হয়েছে। সোমবার রাতে এ ঘটনায় মামলা হয়েছে।

নাসিরুল হক/এসএমএম/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]