কিশোরীকে তুলে নিয়ে দলবেঁধে ধর্ষণ, গ্রেফতার চার

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি বগুড়া
প্রকাশিত: ০৪:১১ পিএম, ২৫ মে ২০২১

বগুড়ার শেরপুরে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে কিশোরীকে দলবেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় সহযোগী নারীসহ তিন যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে মঙ্গলবার (২৫ মে) দুপুরে তাদের জেলা আদালতে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতাররা হলেন- উপজেলার সুঘাট ইউনিয়নের চকসাদি গ্রামের মোসলেম উদ্দীনের ছেলে আসলাম হোসেন (৩৯), একইগ্রামের মজনু মিয়ার ছেলে সোহাগ হোসেন (২৫) ও নুরুল ইসলামের ছেলে জাহিদুল ইসলাম (২৫)। ধর্ষণে সহযোগিতার অভিযোগে বেল্লাল হোসেনের স্ত্রী রাশেদা বেগমকে (২৫) গ্রেফতার করা হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, কিশোরীকে ১৩ মে রাত ৯টার দিকে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘরের বাইরে যায়। এ সময় অভিযুক্তরা ওই কিশোরীর মুখ চেপে ধরে বাড়ির পাশের বাঁশঝাড়ে তুলে নিয়ে যান। সেখানে তাকে পালাক্রমে ধর্ষণ করেন তারা। এ সময় কিশোরীর চিৎকারে তারা পালিয়ে যায়।

শেরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ‘ধর্ষণের শিকার ওই কিশোরীর ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য বগুড়ায় শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এছাড়া ওই ঘটনায় থানায় একটি নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা নেয়া হয়েছে। পাশাপাশি মামলায় অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘ঘটনাটি সম্পর্কে জানতে তাদের আরও জিজ্ঞাসাবাদ প্রয়োজন। এজন্য সাতদিনের রিমান্ড চেয়ে মঙ্গলবার দুপুর দেড়টার দিকে তাদের জেলা আদালতে পাঠানো হয়েছে।’

এসজে

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]