ক্ষেত নষ্ট করায় বিষ দিয়ে বানর হত্যার অভিযোগ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি কক্সবাজার
প্রকাশিত: ০৫:১১ পিএম, ১৩ অক্টোবর ২০২১

কক্সবাজারের মহেশখালীতে ক্ষেত নষ্ট করায় কলার সঙ্গে বিষ মিশিয়ে অর্ধশতাধিক বানর হত্যার অভিযোগ উঠেছে। বড় মহেশখালী মৌজার ভারিতিল্যা ঘোনা নামের পাহাড়ে বানরের আক্রমণে লাউক্ষেত বিনষ্ট হওয়া থেকে রক্ষা পেতে এ অমানবিক ঘটনা ঘটানো হয় বলে জানা গেছে।

মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) বিকেলে ভারিতিল্লা ঘোনার দেবাঙ্গা পাড়া গ্রামের বাসিন্দা মোজাফর মাস্টারের ছেলের লাউক্ষেতের পাশে পড়ে ছিল মৃত বানরগুলো।

স্থানীয়রা জানান, পাহাড়ি জমিতে কাজ করতে যাওয়ার সময় লাউক্ষেতের পাশে বানর গুলোকে মৃত অবস্থায় দেখতে পান তারা। বানরগুলো প্রায়ই লাউক্ষেত বিনষ্ট করতো। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে ক্ষেতের মালিকের রাখা বিষ মিশ্রিত কলা খেয়ে বানরগুলো মারা যায় বলে ধারণা করছেন তারা। জীবিত বানর যেন আর ক্ষেতে না আসে সেজন্য মৃত একটি বানর ক্ষেতের পাশে খুঁটিতে টানিয়ে রাখা হয়।

এ বিষয়ে পরিবেশবাদী সংগঠন গ্রিন এনভায়রনমেন্ট মুভমেন্টের মহেশখালী উপজেলার সভাপতি দিনুর আলম বলেন, ‘বুধবার (১৩ অক্টোবর) সকাল থেকে বানরগুলোকে মাটি চাপা দেওয়া হচ্ছে বলে আমরা জানতে পেরেছি। প্রমাণ লোপাটের জন্যই এমনটা করা হচ্ছে হয়তো। বানর হত্যার সঙ্গে যারা জড়িত তাদের আইনের আওতায় আনা হোক।’

মহেশখালী রেঞ্জের সহকারী বন সংরক্ষক মো. সাদেকুল ইসলাম বলেন, ‘ক্ষেতে বিষ প্রয়োগের কারণেই বানরগুলো মারা গেছে বলে আমরা প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছি। তবে কয়টি বানর মারা গেছে তা এখনো নিশ্চিত নই। কয়েকটি মৃত বানরের ছবি ফেসবুকের মাধ্যমে দেখতে পেয়েছি। ঘটনার আসল কারণ জানতে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। দুই একদিনের মধ্যেই প্রতিবেদন পাওয়ার আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’ 

সায়ীদ আলমগীর/ এফআরএম/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]