মামলার পর ৩১ লাখ টাকা ফেরত দিলেন যশোর শিক্ষা বোর্ডের হিসাব সহকারী

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি যশোর
প্রকাশিত: ১০:২১ এএম, ২২ অক্টোবর ২০২১

দুর্নীতি দমন কমিশনে (দুদক) মামলা হওয়ার পর দুদফায় ৩১ লাখ ৪০ হাজার টাকা ফেরত দিয়েছেন যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের হিসাব সহকারী আবদুস সালাম। পলাতক থেকে তিনি এই টাকা ফেরত দিচ্ছেন। অফিসে অনুপস্থিত থাকায় তাকে বরখাস্ত করা হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) যশোর শিক্ষা বোর্ডের হিসাব শাখার উপ-পরিচালক এমদাদুল হক জাগো নিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

চেক জালিয়াতি করে আড়াই কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ১৮ অক্টোবর চেয়ারম্যান, সচিবসহ পাঁচজনকে আসামি করে (মামলা করে দুদক https://www.jagonews24.com/country/news/708201)। দুর্নীতি দমন কমিশন সমন্বিত জেলা কার্যালয় যশোরের সহকারী পরিচালক মাহফুজ ইকবাল বাদী হয়ে মামলাটি করেন। 

মামলা হওয়ার পর ছুটি নিয়ে বাসভবন ছেড়ে চলে যান শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যান মোল্লা আমীর হোসেন ও সচিব এএমএইচ আলী আর রেজা। তারা এখনো অফিসে যোগদান করেননি। 

দুদকের করা মামলায় আসামিরা হলেন- যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক মোল্লা আমীর হোসেন, সচিব অধ্যাপক এএমএইচ আলী আর রেজা, হিসাব সহকারী আবদুস সালাম, প্রতারক প্রতিষ্ঠান ভেনাস প্রিন্টিং এন্ড প্যাকেজিংয়ের মালিক রাজারহাট এলাকার বাসিন্দা আবদুল মজিদ আলীর ছেলে শরিফুল ইসলাম বাবু ও শেখহাটী জামরুলতলা এলাকার শাহীলাল স্টোরের মালিক মৃত সিদ্দিক আলী বিশ্বাসের ছেলে আশরাফুল আলম।

দুর্নীতি দমন কমিশন যশোর কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মো. নাজমুচ্ছায়াদাত জাগো নিউজকে বলেন, আমরা প্রাথমিক তদন্তে সত্যতা পাওয়ায় পাঁচজনকে আসামি করে মামলা করেছি। দুদকের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা নিয়োগ দেওয়া হবে। আত্মসাৎ করা টাকার শেষ গন্তব্যস্থল খুঁজে বের করা হবে।

যশোর শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক অধ্যাপক মাধব চন্দ্র রুদ্র জাগো নিউজকে বলেন, হিসাব সহকারী আবদুস সালাম টাকা ফেরত দিয়েছেন। বোর্ডের সচিব মেডিকেল রিপোর্ট জমা দিয়ে সাত দিনের ছুটির আবেদন করেছেন। যেহেতু চেয়ারম্যান রোববার থেকে অফিস করার কথা আছে, এজন্য তিনি গাড়ির রিকুজিশন দেন।

মিলন রহমান/এসজে

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]