নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ শিকার, ১৯ জনের কারাদণ্ড

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি মুন্সিগঞ্জ
প্রকাশিত: ০৭:০০ পিএম, ২৪ অক্টোবর ২০২১

মুন্সিগঞ্জের পদ্মা নদীতে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ ধরায় ১৯ জনকে সাতদিনের কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। রোববার (২৪ অক্টোবর) উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কাউসার হামিদ এ কারাদণ্ডাদেশ দেন।

এর আগে, রোববার সকাল থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত লৌহজং উপজেলা সংলগ্ন পদ্মা নদীর বিভিন্ন অংশে নৌপুলিশ ও কোস্টগার্ডের সহায়তায় অভিযান চালিয়ে ৩৫ জনকে আটক করে উপজেলা মৎস্য অফিস। এ সময় তাদের কাছ থেকে ৭০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল, ২০ কেজি মা ইলিশ ও ৭টি মাছ ধরার নৌকা জব্দ করা হয়।

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ শিকার, ১৯ জনের কারাদণ্ড

বিকেলে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনার মাধ্যমে আটকদের মধ্যে ১৯ জনকে সাতদিনের কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ শিকার, ১৯ জনের কারাদণ্ড

লৌহজং উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মো. আসাদুজ্জামান আসাদ জাগো নিউজকে বলেন, নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইলিশ ধরায় নৌপুলিশ ও কোস্টগার্ডের সহায়তায় ৩৫ জনকে আটক করা হয়। এদের মধ্যে ১৯ জনকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে কারাদণ্ড দেওয়া হয়। বাকিদের মধ্যে ১০ জন অপ্রাপ্ত বয়স্ক, দুইজন প্রতিবন্ধী, দুইজন বৃদ্ধ ও দুইজন অসুস্থ হওয়ায় তাদের মুচলেকা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়। জব্দকৃত ইলিশ স্থানীয় এতিমখানায় বিতরণ করা হয়েছে এবং কারেন্ট জাল আগুনে পুড়িয়ে বিনষ্ট করা হয়েছে।

আরাফাত রায়হান সাকিব/ইউএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]