২০ ফুট উঁচু গাছে ঝুলছিল নিখোঁজ কৃষকের মরদেহ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি বরগুনা
প্রকাশিত: ০৫:১২ পিএম, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১

বরগুনায় নিখোঁজের দুদিন পরে আপাং হাওলাদার (৪১) নামের এক কৃষকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। তার বাড়ি আমতলী উপজেলার গুলিশাখালী ইউনিয়নের কালিবাড়ী গ্রামে।

বৃহস্পতিবার (৯ ডিসেম্বর) দুপুরে নিহতের বাড়ির পেছনের ১৮ থেকে ২০ ফুট উঁচু একটি রেইনট্রি গাছ থেকে তার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে আমতলী থানা পুলিশ।

নিহতের স্বজনরা জানান, মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) ফজরের নামাজ পড়তে অজু করার জন্য ঘর থেকে বের হন আপাং হাওলাদার। এরপর তিনি আর ঘরে ফেরেনি। তাকে কোথাও খুঁজে না পেয়ে নিহতের স্ত্রী তাসলিমা বেগম বুধবার (৮ ডিসেম্বর) রাতে আমতলী থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে নিহতের ছেলে ইমরান (১৪) তাদের বাড়ির পাশের আমির মোল্লার বাগানে রেইনট্রি গাছের উঁচু ডালে তার বাবার মরদেহ ঝুলতে দেখে।

তবে নিহতের ভাই আব্দুল জলিল হাওলাদার ও বোন আমেনা বেগমের অভিযোগ, জমিজমা নিয়ে পারিবারিক কলহের জেরে আপাং হাওলাদারকে তার স্ত্রী তাসলিমা বেগম ও তার লোকজন হত্যা করে গাছে ঝুলিয়ে রেখেছেন।

আমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম মিজানুর রহমান জাগো নিউজকে বলেন, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বরগুনা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট পেলে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।

এসআর/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]