মাসুরাকে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসন-পুলিশ সুপারের সংবর্ধনা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সাতক্ষীরা
প্রকাশিত: ০৪:১১ পিএম, ০২ অক্টোবর ২০২২

সাফজয়ী বাংলাদেশ নারী ফুটবল দলের অন্যতম ডিফেন্ডার মাসুরা পারভীনকে আনুষ্ঠানিক সংবর্ধনা দিয়েছে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসন ও পুলিশ সুপার।

রোববার (২ অক্টোবর) বেলা ১১টায় ও দুপুর ১টায় যথাক্রমে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষ এবং পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে পৃথক এ সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

এ সময় জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির বলেন, বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের কারণে আজ সারাদেশে নারী ফুটবল খেলায় জাগরণ সৃষ্টি হয়েছে। সাবিনা ও মাসুরার জন্য সাতক্ষীরাসহ গোটা বাংলাদেশ গর্বিত। সাতক্ষীরার এ দুই কৃতি সন্তানের জন্য নারী ফুটবলে জাগরণ সৃষ্টি হয়েছে। আমরা তাদের পরিবারের পাশে আছি। তারা গরীব মধ্যবিত্ত পরিবারের সন্তান। তাদের পরিবারের সচ্ছলতা ফিরিয়ে আনতে আমরা সাধ্যমত চেষ্টা করবো।

তিনি আরও বলেন, সাফ জয়ী অধিনায়ক সাবিনা খাতুন এখন মালদ্বীপে রয়েছেন। দেশে ফিরলেই দুই ফুটবল তারকাকে দেওয়া হবে নাগরিক সংবর্ধনা। সাতক্ষীরা স্টেডিয়ামে জেলা ক্রীড়া সংস্থা, জেলা ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনসহ বিভিন্ন সংগঠন যৌথভাবে এ সংবর্ধনার আয়োজন করবে। এরই মধ্যে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

এময় উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য মীর মোস্তাক আহমেদ রবি, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) সজিব খান, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফাতেমা-তুজ-জোহরা, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহ-সভাপতি আশরাফজ্জামান আশু, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহমুদ হাসান মুক্তি, মাসুরার বাবা রজব আলী।

জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে নারী ফুটবল দলের অন্যতম ডিফেন্ডার মাসুরা পারভীনকে ফুল ও ক্রেস্ট দিয়ে অভিনন্দন জানান সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য মীর মোস্তাক আহমেদ রবি ও জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির। জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাকে ১ লাখ টাকা উপহার দেওয়া হয়েছে।

জেলা প্রশাসনের সংবর্ধনা শেষে পুলিশ সুপার কাজী মনিরুজ্জামানের পক্ষ থেকে আলাদাভাবে মাসুরাকে সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

বৃহস্পতিবার ভোরে ২০ দিনের ছুটিতে বিনেরপোতাস্থ বাড়িতে আসেন মাসুরা পারভীন।

আহসানুর রহমান রাজীব/এসজে/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।