কুড়িগ্রামে শতভাগ ফেল যে স্কুলে

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি কুড়িগ্রাম
প্রকাশিত: ০১:৫০ পিএম, ২৯ নভেম্বর ২০২২

কুড়িগ্রাম সদর উপজেলার খামার বড়াই বাড়ি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এবারের এসএসসি পরীক্ষায় পাস করেনি কোনো শিক্ষার্থী।

সোমবার (২৮ নভেম্বর) চলতি বছরের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশিত হয়েছে। প্রকাশিত ফলাফলে ওই বিদ্যালয় থেকে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া কোনো শিক্ষার্থী পাস না করায় অন্যান্য শ্রেণির শিক্ষার্থীসহ অভিভাবকরা হতাশায় পড়েছেন।

জানা গেছে, প্রতিষ্ঠানটিতে এবছর এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিতে রেজিস্টেশন করেছে চারজন শিক্ষার্থী। তবে পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে দুইজন। বাকি দুইজনের বিয়ে হয়ে গেছে। চরাঞ্চল ও নদী ভাঙন কবলিত এলাকা হওয়ায় এ অঞ্চলে কম বয়সে মেয়েদের বিয়ে আর মাদরাসা শিক্ষার প্রতি অভিভাবকদের আগ্রহের কারণে স্কুল পড়ুয়া শিক্ষার্থীর সংকট। একই সঙ্গে ফলাফল আশানুরূপ না হওয়ার কারণ বলে জানিয়েছেন খামার বড়াই বাড়ি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক। তবে স্থানীয়দের দাবি প্রতিষ্ঠানটির প্রতি শিক্ষা কর্মকর্তাদের কোনো তদারকি না হওয়ায় এমন খারাপ ফলাফল হয়েছে।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. রেজাউল হক জাগো নিউজকে বলেন, আমার প্রতিষ্ঠান থেকে এবারই প্রথম এসএসসি পরীক্ষায় পাশের সংখ্যা শূন্য। গত বছর এখান থেকে সাতজন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নিয়ে সাতজনই পাশ করেছে। তবে এবছর আমার বিদ্যালয় থেকে পরীক্ষা দেওয়া দুজনই ইতিহাসে ফেল করেছে। আশা করছি আগামী বছর আমরা ঘুরে দাড়াতে পারবো।

ওই বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষায় মানবিক বিভাগে ফেল করা শিক্ষার্থী মোর্শেদা আক্তার মীম বলেন, খামার বাড়ি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষা দিয়ে ইতিহাস বিষয়ে ফেল করেছি। অন্যান্য বিষয়ে ফলাফল মোটামুটি ভালো ছিল। ইতিহাস বিষয়ে শুধু মাত্র অবজেক্টিভে এক নম্বর কম পাওয়ায় ফেল করলাম।

কুড়িগ্রাম সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. জহুরুল হক বলেন, আপনার দেওয়া তথ্যটি সঠিক। খামার বড়াই বাড়ি উচ্চ বিদ্যালয়ের কোনো শিক্ষার্থীই পাস করতে পারেনি। আমরা বিষয়টি দেখছি।

 

ফজলুল করিম ফারাজী/জেএস/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।