শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনে আরও ৮ কোটি ৮২ লাখ টাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০১:৩২ পিএম, ২০ মে ২০১৮

শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিলে গত বছরের (২০১৭) লভ্যাংশের ৮ কোটি ৮২ লাখ ৭ হাজার ৯৮৮ টাকা দিয়েছে ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো কোম্পানি (বাংলাদেশ) লিমিটেড।

কোম্পানির চেয়ারম্যান গোলাম মঈনুদ্দিনের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল রোববার সচিবালয়ে এই টাকার চেক শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হকের কাছে হস্তান্তর করেন।

২০০৬ সালের শ্রম আইন (২০১৩ সালে সংশোধিত) অনুযায়ী, ২ কোটি টাকার বেশি মূলধনী প্রতিষ্ঠানের এক বছরের নিট লভ্যাংশের ৫ শতাংশের মধ্যে চার শতাংশ অর্থ নিজ কোম্পানির শ্রমিকদের জন্য বরাদ্দ থাকে। বাকি এক শতাংশের অর্ধেক প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব শ্রমিক কল্যাণ তহবিলে বাকি অর্ধেক শ্রম মন্ত্রণালয়ের অধীন শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের তহবিলে জমা দিতে হয়। এ তহবিল থেকে প্রাতিষ্ঠানিক, অপ্রাতিষ্ঠানিক খাতে নিয়োজিত শ্রমিকদের কল্যাণে অর্থ সহায়তা দেয় সরকার।

চেক হস্তান্তর অনুষ্ঠানে শ্রম প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘২২ কোটি টাকা বিতরণের পরও শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিলে এখন প্রায় ৩০০ কোটি টাকা আছে। আমরা প্রতিষ্ঠানিক খাতের চেয়ে অপ্রাতিষ্ঠানিক খাতের শ্রমিকদের বেশি সহায়তা দিয়ে থাকি।’

তিনি বলেন, ‘কোনো শ্রমিক কর্মস্থলে মারা গেলে শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিল থেকে ২ লাখ টাকা, শ্রমিকের সন্তান মেডিকেলে বা প্রকৌশল, কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে লেখাপড়া করলে ৩ লাখ টাকা এবং পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে লেখাপড়া করলে ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত দেয়া হয়।’

তিনি আরও জানান, বজ্রপাতে নিহত প্রতিটি কৃষক পরিবারকে ফাউন্ডেশন তহবিল থেকে ২ লাখ টাকা করে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে।

এ সময় শ্রম ও কর্মসংস্থান সচিব আফরোজা খান, শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক আনিসুল আওয়াল উপস্থিত ছিলেন।

আরএমএম/এমএমজেড/আরআইপি

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]