ব্লকে লেনদেন বেড়ে দ্বিগুণ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২:৫৩ পিএম, ৩১ আগস্ট ২০১৯

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ব্লক মার্কেটে লেনদেনের পরিমাণ আগের সপ্তাহের তুলনায় গত সপ্তাহে বেড়ে দ্বিগুণ হয়েছে। গত সপ্তাহের পাঁচ কার্যদিবসে ৪২টি প্রতিষ্ঠান ডিএসইর ব্লক মার্কেটের লেনদেনে অংশ নেয়। এ প্রতিষ্ঠানগুলোর ২ কোটি ১১ লাখ ৭৪ হাজার ৪২টি শেয়ার ৬৬ কোটি ৬০ লাখ ৩৭ হাজার টাকায় লেনদেন হয়েছে, যা আগের সপ্তাহের তুলনায় ৩৫ কোটি ৪৫ লাখ ৬৪ হাজার টাকা বেশি। আগের সপ্তাহে ৩১টি প্রতিষ্ঠানের ৭৭ লাখ ৪১ হাজার ৪৮০টি শেয়ার ৩১ কোটি ১৪ লাখ ৭৩ হাজার টাকায় লেনদেন হয়।

ব্লকে লেনদেন হওয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে রয়েছে- বিকন ফার্মা, ব্র্যাক ব্যাংক, মেরিকো বাংলাদেশ, পূবালী ব্যাংক, ন্যাশনাল ব্যাংক, স্কয়ার ফার্মা, মেঘনা লাইফ ইন্স্যুরেন্স, গ্ল্যাক্সোস্মিথক্লাইন, প্রাইম ইন্স্যুরেন্স, রূপালী লাইফ ইন্স্যুরেন্স, প্যারামাউন্ট টেক্সটাইল, সিটি ব্যাংক, অলিম্পিক, ফুওয়াং ফুড, প্রগতি ইন্স্যুরেন্স, এস আলম, রেনেটা, এশিয়ান টাইগার সন্ধানী লাইফ গ্রোথ ফান্ড, সিরকো ফার্মা এবং দুলামিয়া কটন।

এ ছাড়া ব্লকের লেনদেনে অংশ নেয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে রয়েছে- এসএস স্টিল, ফাইন ফুডস, রেকিট বেনকিজার, রেনউইক যজ্ঞেশ্বর, এসকে ট্রিমস, আইবিবিএল মুদারাবা পারপেচ্যুয়াল বন্ড, বেক্সিমকো ফার্মা, ফনিক্স ইন্স্যুরেন্স, নাভানা সিএনজি, প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স, ফরচুন সুজ, ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্স, শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজ, ড্যাফোডেল কম্পিউটার্স, রানার অটোমোবাইল, সালভো কেমিক্যাল, অ্যাডভেন্ট ফার্মা, আলহাজ্ব টেক্সটাইল, মুন্নু সিরামিক, শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক, ফার্মা এইডস এবং জেনেক্স ইনফোসিস।

প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে গত সপ্তাহে ব্লকে সবচেয়ে বেশি টাকার শেয়ার লেনদেন হয় বিকন ফার্মার। কোম্পানিটির ১৯ কোটি ৬ লাখ ৫৬ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। দ্বিতীয় স্থানে থাকা ব্র্যাক ব্যাংকের ৭ কোটি ১৬ লাখ ১০ হাজার টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। ৬ কোটি ৯৬ লাখ টাকার লেনদেনের মাধ্যমে তৃতীয় স্থানে রয়েছে মেরিকো বাংলাদেশ।

এ ছাড়া পূবালী ব্যাংকের ৫ কোটি ৫৪ লাখ ৯ হাজার টাকা, ন্যাশনাল ব্যাংকের ৪ কোটি ৩৬ লাখ ২ হাজার, স্কয়ার ফার্মার ৩ কোটি ৯২ লাখ ৬৩ হাজার, মেঘনা লাইফের ৩ কোটি ৮ লাখ ৬৭ হাজার, গ্ল্যাক্সোস্মিথক্লাইনের ২ কোটি ৫৫ লাখ ২২ হাজার, প্রাইম ইন্স্যুরেন্সের ১ কোটি ৮৮ লাখ ৩৩ হাজার, রূপালী লাইফের ১ কোটি ৫৫ লাখ ১০ হাজার, প্যারামাউন্ট টেক্সটাইলের ১ কোটি ৫৪ লাখ ১২ হাজার, সিটি ব্যাংকের ১ কোটি ৩৪ লাখ ২৫ হাজার এবং অলিম্পিকেরর ১ কোটি ৮ লাখ ৪০ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

বাকি কোম্পানিগুলোর এককভাবে এক কোটি টাকার কম লেনদেন হয়। এর মধ্যে- ফুওয়াং ফুডের ৬৯ লাখ ৫০ হাজার টাকা, প্রগতি ইন্স্যুরেন্সের ৬৯ লাখ ৩৩ হাজার টাকা, এস আলমের ৬১ লাখ ৭৫ হাজার, রেনেটার ৪৮ লাখ ৭৯ হাজার, এশিয়ান টাইগার সন্ধানী লাইফ গ্রোথ ফান্ডের ৪১ লাখ ৯১ হাজার, সিরকো ফার্মার ৩৪ লাখ, দুলামিয়া কটনের ৩৩ লাখ ৮৪ হাজার, এসএস স্টিলের ২৭ লাখ ৭২ হাজার, ফাইন ফুডসের ২১ লাখ ৬ হাজার, রেকিট বেনকিজারের ২০ লাখ ৩০ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

এককভাবে ব্লক মার্কেটে ২০ লাখ টাকার কম লেনদেন হওয়া কোম্পানিগুলোর মধ্যে- রেনউইক যজ্ঞেশ্বরের ১৯ লাখ ২৩ হাজার টাকা, এসকে ট্রিমসের ১৮ লাখ ৪৬ হাজার, আইবিবিএল মুদারাবা পারপেচ্যুয়াল বন্ডের ১৮ লাখ ৪০ হাজার, বেক্সিমকো ফার্মার ১৫ লাখ ৭ হাজার, ফনিক্স ইন্স্যুরেন্সের ১৪ লাখ ৮৪ হাজার, নাভানা সিএনজির ১৪ লাখ ৪০ হাজার, প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্সের ১২ লাখ ৩০ হাজার, ফরচুন সুজের ১২ লাখ ১২ হাজার, ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্সের ১১ লাখ ৯৭ হাজার, শেফার্ড ইন্ডাস্ট্রিজের ১১ লাখ ২০ হাজার, ড্যাফোডেল কম্পিউটার্সের ১০ লাখ ৯৪ হাজার, রানার অটোর ১০ লাখ ৪৩ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

বাকি প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে- সালভো কেমিক্যালের ৯ লাখ ৪৫ হাজার টাকা, অ্যাডভেন্ট ফার্মার ৮ লাখ ৭ হাজার, আলহাজ্ব টেক্সটাইলের ৭ লাখ ৬৭ হাজার, মুন্নু সিরামিকের ৬ লাখ ৪৫ হাজার, শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের ৫ লাখ ৩৫ হাজার, ফার্মা এইডসের ৫ লাখ ৩০ হাজার, জেনেক্স ইনফোসিসের ৫ লাখ ১ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

এমএএস/জেডএ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]