ভরা মৌসুমেও চড়া ইলিশের দাম

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২:৩৪ পিএম, ০৬ আগস্ট ২০২২

সাগরে এখন ঝাঁকে ঝাঁকে ধরা পড়ছে রুপালি ইলিশ। দেশের বাজারগুলোও ইলিশে সয়লাব। তবুও চড়া দামেই বিক্রি হচ্ছে ইলিশ। অথচ বিক্রেতাদের দাবি, বাজারে ইলিশের সরবরাহ কম কিন্তু ক্রেতা বেশি। গত দুই দিনে মানভেদে কেজিপ্রতি ইলিশের দাম বেড়েছে ১৫০ থেকে ২০০ টাকা। অথচ আজ (শনিবার) রাজধানীর বাজারগুলোতে মানভেদে ইলিশের দাম কেজিপ্রতি ২০০ থেকে ৩০০ টাকা বেড়ে গেছে।

শনিবার (৬ আগস্ট) ঢাকার বিএনপি বাজার, হাতিরপুল ও কাওরানবাজার ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে।

সরেজমিনে দেখা যায়, বিএনপি কাঁচাবাজারে ৬০০ থেকে ৭০০ গ্রাম ওজনের ইলিশ কেজিপ্রতি ৮০০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। আর এক কেজি ২০০ থেকে এক কেজি ৩০০ গ্রাম ওজনের ইলিশ এক হাজার ৬০০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে।

ভরা মৌসুমেও চড়া ইলিশের দাম

এখানের ইলিশ বিক্রেতা নূরে আলম বাড়তি দাম প্রসঙ্গে বলেন, নদীতে পানি কম। মাছ নেই, ধরাও কম পড়ছে। আবার আমদানিও কম। এসব মিলিয়ে ইলিশের দাম বেড়েছে।

কাওরানবাজারেও ইলিশ মাছের বাড়তি দাম দেখা গেছে। এখানে এক কেজি ২০০ থেকে এক কেজি ৩০০ গ্রাম ওজনের ইলিশ ১ হাজার ৪০০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। আর ৫০০ থেকে ৬০০ গ্রাম ওজনের ইলিশ সাড়ে ৮০০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া এক কেজি ৮০০ গ্রাম ওজনের ইলিশ কেজিপ্রতি এক হাজার ৮০০ টাকা থেকে দুই হাজার টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

ভরা মৌসুমেও চড়া ইলিশের দাম

কাওরানবাজারের ইলিশ মাছ বিক্রেতা শুক্কর আলী বলেন, ইলিশের দাম কেজিপ্রতি ২০০ থেকে ৩০০ টাকা বাড়তি। ইলিশের আমদানি আছে। তবে আমদানির থেকে কাস্টমার (ক্রেতা) বেশি। এজন্য দামও একটু বাড়তি।

ভরা মৌসুমেও ইলিশের দাম বাড়ায় ক্ষুব্ধ নগরীর ক্রেতারা। মগবাজার-মধুবাগের ক্রেতা আরিফুর রহমান বলেন, আপনারা সাংবাদিকেরাই টিভিতে দেখান, ঝাঁকে ঝাঁকে সাগরে ইলিশ ধরা পড়ছে। কিন্তু বাজারে তার প্রভাব নেই। তাহলে এতো এতো ইলিশ ধরা পড়ে যাচ্ছে কোথায়? এই সময় দাম কমার কথা, অথচ মাঝারি মানের ইলিশ কেজিপ্রতি হাজার টাকায় কিনতে হচ্ছে।

এমওএস/এমপি/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]