পরীক্ষার আগে ডিম খেলে যা হয়

ফিচার ডেস্ক
ফিচার ডেস্ক ফিচার ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:৫৬ এএম, ২৭ মার্চ ২০১৮

প্রতিদিনের খাবারে ডিম একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। তবে ডিম নিয়ে কুসংস্কারেরও অভাব নেই। পরীক্ষায় ফেল করা মানে ডিম, আণ্ডা বা গোল্লা পাওয়া। তাই পরীক্ষা দিতে যাওয়ার আগে অনেকেই ডিমকে এড়িয়ে চলেন। ইউরোপ ও আমেরিকাতেও এ সংস্কার রীতিমতো ছড়িয়ে পড়েছে।

এ সংস্কার আমাদের দেশেও কিন্তু বহাল। পরীক্ষা দিতে যাওয়ার আগে ডিম খাওয়া কি শুভ? এমন প্রশ্ন সবার মনেই দেখা দেয়। অনেকেই মনে করেন, ডিমের মতো একটা জিনিস খেয়ে পরীক্ষা দিতে গেলে পরীক্ষায় গোল্লা পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

তবে মূল কথা হচ্ছে পরীক্ষা দিতে যাওয়ার আগে ডিম খেলে পেটে গুড়গুড় শব্দ হতে পারে। মাথা ঝিমঝিম করতে পারে। তখন মনে এমনিতেই ভয় চলে আসে। কারণ ডিম খেয়ে হজম করা সবার জন্য হয়তো সম্ভব নয়। কিন্তু পশ্চিমা সংস্কার বলছে সম্পূর্ণ ভিন্ন কথা।

পশ্চিমা সংস্কৃতি বলছে— ডিম প্রজননের প্রতীক। তার মধ্যে রয়েছে পুনরুত্থান বা নবজন্মের ব্যঞ্জনা। ইংল্যান্ডে ধবধবে সাদা ডিম অত্যন্ত শুভ বলে বিবেচিত। উপহার হিসেবেও ডিম বেশ জনপ্রিয়। কিন্তু বাদামি রংয়ের ডিম নিয়ে অনেক সংস্কার রয়েছে সেখানে। সেটা নাকি মোটেও শুভ নয়।

সে যাই হোক— আসল কথা হচ্ছে, খেয়ে হজম করতে পারলে ডিম কোনো ব্যাপারই নয়। ডিমে প্রচুর পরিমাণে উপকারী উপাদান রয়েছে। আপনার হজমশক্তি যদি আপনাকে সাহায্য করে, তবে খেয়ে নিতে পারেন একটি ডিম।

এসইউ/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :