ঈদের ছুটিতেও বিএসএমএমইউতে ডেঙ্গুর চিকিৎসকরা

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৪:২৫ পিএম, ১১ আগস্ট ২০১৯

পবিত্র ঈদুল আজহার ছুটিতেও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) ডেঙ্গু সেল চালু রয়েছে। বহির্বিভাগ খোলা হবে ঈদের পরদিন ১৩ আগস্ট থেকে। ১৪ আগস্টও বহির্বিভাগ খোলা থাকবে। এরপর ১৫ আগস্ট জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বহির্বিভাগে সকাল ৯টা থেকে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা বিনামূল্যে চিকিৎসাসেবা দেবেন।

ঈদুল আজহার ছুটিতে চিকিৎসাসেবা কার্যক্রম যাতে ব্যাহত না হয় সে জন্য বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া ইতোমধ্যে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিয়েছেন।

তিনি আজ বেলা ১১টায় ডি ব্লক, কেবিন ব্লকের নিচতলায় ডেঙ্গু সেলের চিকিৎসাসেবা কার্যক্রম সরেজমিনে পরিদর্শন করেন। অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া রোগীদের চিকিৎসার খোঁজ-খবর নেন এবং সংশ্লিষ্ট চিকিৎসক, নার্সদের প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেন।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. মুহাম্মদ রফিকুল আলম, রেজিস্ট্রার অধ্যাপক ডা. এ বিএম আব্দুল হান্নান, প্রক্টর অধ্যাপক ডা. সৈয়দ মোজাফফর আহমেদ, পরিচালক (হাসপাতাল) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. এ কে মাহবুবুল হক, হেমাটোলজি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. মো. আব্দুল আজিজ, নিউরোসার্জারি বিভাগের অধ্যাপক ডা. হারাধন দেবনাথ, অতিরিক্ত পরিচালক (হাসপাতাল) ডা. নাজমুল করিম মানিক প্রমুখ।

বিএসএমএমইউ সূত্রে জানা গেছে, বিএসএমএমইউতে গতকাল শনিবার ১০ আগস্ট সকাল ৮ থেকে আজ (রোববার) ১১ আগস্ট সকাল ৮টা পর্যন্ত অর্থাৎ গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গুতে আক্রান্ত ভর্তি রোগীর সংখ্যা হলো ১৬১ জন। এর মধ্যে নতুন ভর্তি রোগী ২১ জন এবং আগের ভর্তি রোগী ১৪০ জন।

গত ২৭ জুলাই থেকে আজ সকাল ৮টা পর্যন্ত ডেঙ্গু চিকিৎসা সেলে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ৫৭৯ রোগী ভর্তি হয়েছেন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন ৪১৬ জন। মেডিসিন ওয়ার্ড, শিশু ওয়ার্ড, ডেঙ্গু চিকিৎসা সেল, কেবিন, আইসিইউ ও এইচডিইউতে এ সব রোগী ভর্তি আছেন। বর্তমানে আইসিইউতে একজন এবং এইচডিইউতে চারজন রোগী ভর্তি আছেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিসিন বহির্বিভাগে বর্তমানে দৈনিক গড়ে প্রায় ৩০০ জন জ্বরের রোগী সেবা নিচ্ছেন। এ সব রোগীর প্রায় ৩০ শতাংশ ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত। চলতি বছর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের বহির্বিভাগে ৫২০৫ জন ডেঙ্গু রোগী সেবা নিয়েছেন।

ডেঙ্গু রোগীদের চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করতে শয্যা সংখ্যা ১৫০ থেকে ২০০ শয্যায় উন্নীত করা হয়েছে। ডেঙ্গু সেলের মাধ্যমে ভর্তি রোগীদের পরীক্ষা-নিরীক্ষা, ওষুধ, স্টেশনারিসহ চিকিৎসাসেবা, বেড ভাড়া এমনকি আইসিইউ এবং এইচডিইউ সেবাও বিনামূল্যে দেয়া হচ্ছে। এ ছাড়াও ডেঙ্গু সেলে আসা রোগীদের প্রাথমিকভাবে সিবিসি, এনএস১, আইজিএম, আইজিএম ও আইজিজি বিনামূল্যে করা হচ্ছে।

এমইউ/এনডিএস/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :