যুক্তরাষ্ট্র-রাশিয়ার সম্পর্ক তলানিতে ঠেকেছে : পুতিন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ১০:১০ এএম, ১২ জুন ২০২১ | আপডেট: ১০:১৯ এএম, ১২ জুন ২০২১

সাম্প্রতিক বছরগুলোতে যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়ার মধ্যকার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক তলানিতে গিয়ে ঠেকেছে বলে মন্তব্য করেছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। এই সম্পর্ক উন্নয়নে উভয় দেশকেই মনোযোগী হওয়া উচিত মনে করেন তিনি। শুক্রবার সংবাদমাধ্যম এনবিসিকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এসব কথা বলেন পুতিন।

আগামী ১৬ জুন সুইজারল্যান্ডের জেনেভায় প্রথমবারের মতো বৈঠকে বসতে যাচ্ছেন দুই ক্ষমতাধর রাষ্ট্র যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও ভ্লাদিমির পুতিন। তার আগেই কথার লড়াই শুরু হয়েছে তাদের মধ্যে।

জি৭ বৈঠক, ন্যাটো সম্মেলন ও ইউরোপের মিত্রদের সঙ্গে সম্পর্ক উন্নয়নে ৭ দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে বর্তমানে ব্রিটেনে আছেন জো বাইডেন। যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নেয়ার পর এটি তার প্রথম বিদেশ সফর।

বৈঠকের আগে পুতিনকে হুঁশিয়ারি দিয়ে গত ১০ জুন বাইডেন বলেন, ‘আমরা রাশিয়ার সঙ্গে সংঘাত চাই না...আমরা চাই একটি স্থিতিশীল ও অনুমানযোগ্য সম্পর্ক। তবে আমি স্পষ্ট করে বলতে চাই, রাশিয়া সরকার যদি কোনো প্রকার ক্ষতিকর কার্যক্রমের সঙ্গে যুক্ত থাকে, সেক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র তা শক্ত হাতে এবং তাৎপর্যপূর্ণ উপায়ে তা প্রতিহত করবে।’

শুক্রবারের সাক্ষাৎকারে বাইডেনের বক্তব্যেরই প্রতিক্রিয়া জানালেন পুতিন। ব্ক্তব্যে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রশংসাও করেছেন তিনি।

পুতিন বলেন, ‘এখন আমি আমি বিশ্বাস করি ট্রাম্প একজন অনন্যসাধারণ এবং প্রতিভাবান ব্যক্তি। তা না হলে তিনি যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হতে পারতেন না।’

বাইডেনকে ট্রাম্পের চেয়ে ভিন্ন ধরনের উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘বাইডেন ট্রাম্পের চেয়ে পুরোপুরি আলাদা ধরনের মানুষ। রাজনৈতিক পরিপূর্ণতা পেতে তিনি অনেক সময় ব্যয় করেছেন।’

সূত্র : আল জাজিরা

ইএ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]