ভূমি মন্ত্রণালয়ে দুর্নীতির কথা স্বীকার করলেন মন্ত্রী


প্রকাশিত: ০১:৩২ পিএম, ০৯ জুলাই ২০১৭

ভূমি ব্যবস্থাপনায় দুর্নীতি আছে স্বীকার করে ওই মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী শামসুর রহমান শরীফ বলেছেন, বহুদিন ধরে এই দুর্নীতি প্রচলিত আছে; তবে সরকার দুর্নীতি রোধে বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছে, নিচ্ছে।

রোববার বিকেলে প্রশ্নোত্তর পর্বে স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য রুস্তম আলী ফরাজীর সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে তিনি একথা বলেন।

প্রশ্নকর্তা বলেন, যেখানে ভূমি জরিপ হয় সেখানকার মানুষ গরিব হয়। জবাবে মন্ত্রী বলেন, প্রতিটি ইউনিয়নে একটি করে ভূমি অফিস তৈরি হবে। এ অফিসগুলো আধুনিক ডিজিটাল ব্যবস্থাপনায় চলবে। ফলে ঘুষ-দুর্নীতি থাকবে না। দেশে ভূমি ব্যবস্থাপনায় বর্তমানে যে ব্যবস্থা চালু আছে তা আমরা তৈরি করিনি। নবাবী আমল, ব্রিটিশ আমল, পাকিস্তান আমলসহ বিভিন্ন সময়ে যে ব্যবস্থা তৈরি হয়েছিল সেটাই চলে আসছে। ওইসব সরকারের সময় ভূমি ব্যবস্থায় অব্যবস্থপনা দুর্নীতি  ছড়িয়েছে।

তিনি বলেন, ইস্কান্দার মির্জা সরকার, আয়ুব খানের সামরিক শাসনামল থেকে সব সামরিক শাসনের সময় ভূমি ব্যবস্থাপনায় দুর্নীতির শেকড় গেড়েছে। ভূমির দুর্নীতি দূর করতে না পারলে দেশকে দুর্নীতিমুক্ত করা যাবে না।

মন্ত্রী আরও বলেন, বঙ্গবন্ধু যে ভূমি ব্যবস্থাপনার স্বপ্ন দেখেছিলেন তার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তা বাস্তবায়ন করে চলেছেন। ভূমি ব্যবস্থাপনায় ডিজিটাল পদ্ধতি প্রবর্তন করা হয়েছে। এই আধুনিক ব্যবস্থা পুরোপুরি চালু হলে দুর্নীতি থাকবে না। 

এইচএস/এএইচ/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :