চালের দাম কমানোর আশ্বাস ব্যবসায়ীদের

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১০:৪৯ এএম, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৭

চালের দাম কমানোর আশ্বাস দিয়েছেন চালকল মলিক, ব্যবসায়ী ও আমদানিকারকরা।

মঙ্গলবার সচিবালয়ে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে চালকল মালিক, ব্যবসায়ী ও আমদানিকারকদের সঙ্গে বৈঠকে চাল ব্যবসায়ীদের বিভিন্ন দাবি পূরণের আশ্বাস দেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ। মন্ত্রীর আশ্বাসের পর চাল ব্যবসায়ীরা দাম কমানোর কথা জানান।

খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলামের সভাপতিত্বে বৈঠকে কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী, খাদ্য মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও সাবেক খাদ্যমন্ত্রী আব্দুর রাজ্জাক উপস্থিত ছিলেন।

ঈদুল আজহার আগে প্রতি কেজি মোটা চালের দাম ৪২-৪৪ টাকা থাকলেও এখন তা ৫০-৫৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

বৈঠকে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আপনারা বিভিন্ন সমস্যার কথা বলেছেন। আমাদের খাদ্যের কোনো সঙ্কট নেই। প্রাকৃতিক দুর্যোগের কারণে যেটুকু ঘাটতি হয়েছে তা বিভিন্নভাবে জিটুজি ও সরকারিভাবে টেন্ডারের মাধ্যমে আনব। আপনারা (চালকল মালিক ও ব্যবসায়ী) যেসব বাধার কথা বলেছেন সেগুলো দূর করার জন্য কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

সভায় ব্যবসায়ীরা চাল সংরক্ষণ ও পরিবহনে পাটের বস্তার পরিবর্তে প্লাস্টিকের বস্তা ব্যবহারের অনুমতি চান। প্লাস্টিকের বস্তার ওপর নিষেধাজ্ঞা তুলে দেয়ার দাবি জানান। চাঁপাইনবাবগঞ্জের রহনপুর দিয়ে ট্রেনে চাল পরিবহনের অনুমতি ও ব্যবসায়ীদের হয়রানি না করারও দাবি জানান।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, যে যে ব্যাগে আনতে পারেন সেভাবে আনবেন। টেন্ডারে (পাটের বস্তায় চাল আমদানির বিষয়টি) সংশোধন করা হবে।

তিনি আরও বলেন, ট্রেনে যাতে চাল আনা যায় সে পদক্ষেপ নেয়া হবে। বন্ধু হিসেবে, আপন হিসেবে, সরকারও আপনাদের আপনারাও আমাদের- বলেন বর্ষীয়ান এ রাজনীতিবিদ।

প্লাস্টিকের বস্তার ওপর নিষেধাজ্ঞা উঠে যাওয়ার কারণে চালের দাম প্রতি কেজিতে ২ টাকা কমবে বলে জানান মন্ত্রী।

এসব পদক্ষেপের কারণে চালের দাম কমে যাবে বলে উপস্থিত চালকল মালিক ও কয়েকজন ব্যবসায়ী আশ্বাস দেন।

বৈঠকে বাংলাদেশ অটো মেজর ও হাসকিং মিল মালিক অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আব্দুল রশীদ ও সাধারণ সম্পাদক কে এম লায়েক আলীসহ চালকল মালিক, চাল আমদানিকারক ও চাল ব্যবসায়ীরা উপস্থিত ছিলেন।

আরএমএম/এএইচ/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :