মাদকের অপব্যবহার রোধে ঐক্যবদ্ধ হোন : রাষ্ট্রপতি

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ০৯:২৩ পিএম, ২৫ জুন ২০১৮
ফাইল ছবি

রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ মাদকের অপব্যবহার প্রতিরোধে সকল শ্রেণি ও পেশার মানুষকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন।

মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার ও অবৈধ পাচারবিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস উপলক্ষে সোমবার এক বাণীতে এ আহ্বান জানান তিনি।

মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার প্রতিরোধ ও মাদকমুক্ত বাংলাদেশ গড়ার দৃঢ় প্রত্যয় নিয়ে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের উদ্যোগে আগামীকাল (২৬জুন) ‘মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার ও অবৈধ পাচারবিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস’ পালিত হচ্ছে জেনে রাষ্ট্রপতি সন্তোষ প্রকাশ করেন।

তিনি বলেন, মাদক যে কোনো দেশের উন্নয়ন, শান্তি ও নিরাপত্তার জন্য হুমকি। মাদকের করালগ্রাস দেশের প্রাণশক্তি যুবসমাজকে ধ্বংসের মাধ্যমে উন্নয়নের পথকে বাধাগ্রস্ত করে। তাই মাদকের অপব্যবহার ও পাচার প্রতিরোধ করা অত্যন্ত জরুরি।

বর্তমান সরকারের ব্যাপক উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের ফলে বাংলাদেশ আজ স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হয়েছে উল্লেখ করে আবদুল হামিদ বলেন, এসডিজি অর্জন ও সরকারের রূপকল্প ২০২১ ও ২০৪১ বাস্তবায়নে দেশের যুবসমাজকে অগ্রণী ভূমিকা নিতে হবে।

তিনি বলেন,মাদকাসক্তদের সঠিক চিকিৎসা প্রদান ও পুনর্বাসন করা গেলে তারা সমাজ ও রাষ্ট্রের জন্য বোঝা না হয়ে সম্পদে পরিণত হবে। এক্ষেত্রে সরকারের পাশাপাশি দেশি-বিদেশি সংস্থা, স্বেচ্ছাসেবী প্রতিষ্ঠানসহ সমাজের সকল শ্রেণি ও পেশার মানুষকে এগিয়ে আসতে হবে।

রাষ্ট্রপতি বলেন, মাদকের অপব্যবহার প্রতিরোধে নাগরিক সমাজের সর্বাত্মক সহযোগিতা অপরিহার্য। মাদকের অপব্যবহার এবং এর ক্ষতিকর প্রভাব সম্পর্কে জনগণকে সচেতন করার পাশাপাশি দেশকে মাদকমুক্ত রাখার অঙ্গীকারের বার্তা প্রতিটি জনপদে পৌঁছে দিতে হবে। এ লক্ষ্যে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানান তিনি।

রাষ্ট্রপতি মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার ও অবৈধ পাচারবিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস উপলক্ষে গৃহীত সকল কর্মসূচির সার্বিক সাফল্য কামনা করেন।

এফএইচএস/এমএআর/পিআর