মক্কায় সাময়িক মানসিক ভারসাম্য হারাচ্ছেন অনেক হজযাত্রী

মনিরুজ্জামান উজ্জ্বল
মনিরুজ্জামান উজ্জ্বল মনিরুজ্জামান উজ্জ্বল , বিশেষ সংবাদদাতা মক্কা থেকে
প্রকাশিত: ০২:৪০ পিএম, ১২ আগস্ট ২০১৮

পবিত্র ভূমি মক্কায় হজ পালন করতে গিয়ে সাময়িকভাবে মানসিক ভারসাম্য হারাচ্ছেন অনেক হজযাত্রী। গত তিন সপ্তাহে হজ মেডিকেল সেন্টারে এ সংক্রান্ত সমস্যায় চিকিৎসাসেবা গ্রহণ করেছেন কমপক্ষে ১৫ বাংলাদেশি হজযাত্রী। তাদের মধ্যে ১৪ জন পুরুষ ও একজন মহিলা হজযাত্রী রয়েছেন।

জানা গেছে, মানসিক ভারসাম্য হারানো হজযাত্রীদের মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক থেকে গ্রামের সাধারণ কৃষকও রয়েছেন। অাক্রান্তদের মধ্যে কয়েকজনকে হজ মেডিকেল সেন্টার থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য স্থানীয় কেএসএ হাসপাতালেও ভর্তি করা হয়।

বাংলাদেশ হজ মেডিকেল সেন্টারের টিম লিডার ডা. মো. জাকির হোসেন খান হজযাত্রীদের সাময়িকভাবে এ সমস্যার কথা স্বীকার করে বলেন, ‘সাময়িকভাবে ভারসাম্য হারানো হজযাত্রীরা বর্তমানে সবাই সুস্থ আছেন। তাদের বেশিরভাগই পঞ্চাশোর্ধ।’ তবে ব্যক্তিগত গোপনীয়তা রক্ষায় কারো নাম প্রকাশ করেননি তিনি।

মানসিক ভারসাম্য হারানো কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন, সুনির্দিষ্ট কোনো কারণ বলা সম্ভব না হলেও অধিক বয়স, পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া, কাবাঘর দেখে অতিমাত্রায় আবেগতাড়িত হয়ে পড়া বা আবহাওয়ার তারতম্যের কারণে মানসিক ভারসাম্য হারাতে পারেন।

এদিকে শনিবার (১১ আগস্ট) মিসফালাহ এলাকায় মধ্যবয়সি এক বাংলাদেশি মহিলাকে রাস্তায় দৌড়াদৌড়ি করতে দেখা যায়। তার স্বামী হাত ধরে হোটেলে আনতে চাইলেও মহিলা বারবার হাত ছাড়িয়ে উল্টোদিকে চলে যাচ্ছিলেন। ভদ্রমহিলার স্বামী বলেন, ‘কিছুই বুঝতে পারছি না। সে যে সৌদিতে এসেছে তা ভুলে গেছে। সে বলছে এটা তার গ্রামের বাড়ি।’ পরে তাকে মেডিকেল সেন্টারে ডাক্তার দেখানো হয়।

চলতি বছর বাংলাদেশ থেকে সরকারি ব্যবস্থাপনায় ৬ হাজার ৭৯৮ জন ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনার ১ লাখ ২০ হাজার জনসহ মোট ১ লাখ ২৬ হাজার ৭৯৮ জন হজে যাবেন। এর মধ্যে সৌদি এয়ারলাইন্স ১৮০টি ফ্লাইটে মোট ৬৩ হাজার ৫৯৯ জন ও অবশিষ্ট যাত্রী বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স পরিবহন করবে।

এমইউ/আরএস/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :