রাজধানীর অনেক এলাকায় গ্যাস নেই

বিশেষ সংবাদদাতা
বিশেষ সংবাদদাতা বিশেষ সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১২:১৬ পিএম, ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

রাজধানীর ধানমন্ডি, গ্রিন রোড, জিগাতলা, টালিমোড়, হাজারীবাগ এলাকায় গ্যাস নেই। আজ (শনিবার) সকালে ঘুম থেকে উঠে কোনো পরিবার নাস্তা তৈরি করতে পারেনি। ফলে অনেক পরিবারকে রেস্তোরাঁ এবং শুকনো খাবারের ওপর নির্ভর করতে হয়েছে।

জানা গেছে, কোনো ঘোষণা ছাড়াই গ্যাস সরবরাহ স্বাভাবিক না থাকায় ধানমন্ডি, জিগাতলা, গ্রিন রোড, ১৫ নম্বর, শংকর, ট্যানারি মোড়, হাজারীবাগ এলাকায় গ্যাসের সংকট দেখা দিয়েছে। অনেক পরিবার সকাল বেলা ঘুম থেকে উঠে চুলা ধরাতে গিয়ে দেখে গ্যাস নেই। ফলে সকালে নাস্তা তৈরি করাও সম্ভব হয়নি। অনেকে রেস্তোরাঁ থেকে নাস্তা এনে খেয়েছেন। কাউকে শুকনো খাবারের ওপর নির্ভর করতে হয়েছে।

গ্রিন রোড এলাকার গৃহিণী আরিফা আক্তার রেমা জাগো নিউজকে বলেন, সকালে গ্যাসের চুলা ধরাতে গিয়ে দেখি গ্যাসের স্বাভাবিক ফ্লো নেই। টিপ টিপ করে যেভাবে জ্বলছে তাতে রান্না করার মতো অবস্থা নেই। ফলে শুকনো খাবার খেয়ে নাস্তার কাজ সেরেছি। দুপুরে কীভাবে চলবে সেটা ভাবছি।

তবে রেমা বলেন, গ্রিন রোড স্টাফ কোয়ার্টার তার বোনের বাসায় গ্যাসের সরবরাহ অনেকটা স্বাভাবিক। জিগাতলা কাঁচাবাজার এলাকার ব্যবসায়ী লিখন বলেন, গ্যাস নিয়ে সংকটে আছি। গ্যাস না থাকার কারণে পরোটা আনতে গিয়েছি সেখানে দেখি লম্বা লাইন। প্রায় এক ঘণ্টা পর ১০টি পরোটা পেয়েছি।

তিনি বলেন, সকাল সাড়ে ১০টার পরে যারা গেছেন তারা নাস্তাই পাননি। গতকাল শুনলাম মাইকে ঘোষণা দেয়া হয়েছে। কিন্তু আমি নিজে কানে শুনিনি।

জিগাতলার দোকানদার বেলাল হোসেন বলেন, আমিও ঘোষণা শুনিনি। সারাদিন তো দোকানেই ছিলাম।

জিগাতলার সুনামি হোটেলের বয় ইব্রাহিম বলেন, সকাল ১০টার পর যারা এসেছেন তারা অনেকে পরোটার সঙ্গে সবজি ও ডাল পাননি। অনেকে শুধু পরোটা নিয়ে চলে গেছেন।

তবে জিগাতলায় বসবাস করে তিতাস গ্যাসের একজন বড় কর্মকর্তা বলেন, গ্যাস না থাকার বিষয়টি অনলাইনে জানিয়ে দেয়া হয়েছে।

এদিকে শনিবার বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে, রাজধানী ও এর পার্শ্ববর্তী বিভিন্ন এলাকায় জরুরি রক্ষণাবেক্ষণ কাজের জন্য শনিবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) সকাল ৮টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টা গ্যাস সরবরাহে বিঘ্ন ঘটতে পারে।

বলা হয়, জরুরি রক্ষণাবেক্ষণ কাজের জন্য আশুলিয়া ও আমিনবাজার সিজিএস প্ল্যান্ট থেকে তিতাস সিস্টেমে গ্যাস সরবরাহ বন্ধ থাকবে।

এতে আশুলিয়া, সাভার, আমিনবাজার, গাবতলী, মিরপুর, পাইকপাড়া, পীরেরবাগ, কল্যাণপুর, শ্যামলী, রিং রোড, মনসুরাবাদ, কাদিরাবাদ, মোহাম্মদপুর, লালমাটিয়া, ধানমন্ডি, আজিমপুর, হাজারীবাগ এবং তদসংলগ্ন এলাকায় গ্যাস সরবরাহ বিঘ্নিত হতে পারে বা গ্যাসের স্বল্পচাপ বিরাজ করতে পারে।

এফএইচএস/বিএ/আরআইপি